টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

চট্টগ্রামে চিকিৎসা নিতে গিয়ে ধর্ষিত নারী পোশাককর্মী

চট্টগ্রাম,  ০১ নভেম্বর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস):: নগরীর খুলশী থানার টাইগারপাস এলাকায় শওকত আলী (৩৫) নামের এক ডাক্তারের কাছে চিকিৎসা নিতে গিয়ে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক নারী পোশাককর্মী। এ ঘটনায় মঙ্গলবার চট্টগ্রামের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৩ এ মামলা করেছেন ভুক্তভোগী ওই নারী।

এল.এম.এ.এফ ডিগ্রিধারী শওকত আলী নগরের খুলশী থানার মুক্তা কলোনী এলাকার মোঃ এজাহার আলীর ছেলে। মামলাটি দায়ের করতে সহযোগিতা করেছেন লিগ্যাল এইড অফিসের প্যানেল আইনজীবি ইসকান্দর সোহেল।

তিনি বলেন, নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-৩ আদালতে বর্তমানে বিচারক নেই। তাই অভিযোগ গ্রহণ করে আদালতের সেরেস্তার মামলার নম্বর দিয়েছেন ৮৫৫/২০১৬। আগামী ৬ নভেম্বর এই আদালতে বিচারক যোগ দেওয়ার কথা রয়েছে। তখন অভিযোগ গ্রহণের শুনানির জন্য দিন ধার্য্য করকেন বিচারক।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, খুলশী থানার টাইগারপাসের মুক্তা কলোনী এলাকার মুক্তা ফার্মেসীতে চেম্বার করেন ডাঃ শওকত আলী। চলতি বছরের ২৫ জুন ব্যাথার ওষুধের জন্য ওই ফার্মেসীতে যান এক নারী গার্মেন্টস কর্মী। ব্যাথা কমাতে ইনজেকশন দিতে হবে জানিয়ে ওই নারীকে ফার্মেসীর ভেতরের কক্ষে নিয়ে যান শওকত আলী।

এরপর নানা কৌশল ও বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষণ করে। এরপর ১ ও ১৭ সেপ্টেম্বর আরো দুই দফা ওই নারীকে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করেন শওকত। এরপর বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানানোর ফলে প্রথমে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টার ও পরে লিগ্যাল এইড অফিসে গিয়ে আইনগত সহযোগিতা চান ওই নারী।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত