টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

চট্টগ্রামে সপ্তাহব্যাপী আয়কর মেলার উদ্বোধন

ctgচট্টগ্রাম,  ০১ নভেম্বর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস):: বন্দর নগরী চট্টগ্রামে বর্ণাঢ্য আয়োজনে উদ্বোধন করা হয়েছে সপ্তাহব্যাপী আয়কর মেলা। আজ মঙ্গলবার দুপুরে নগরীর জিইসি কনভেনশন হলে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে মেলার উদ্বোধন করেন গৃহায়নও গণপূর্ত মন্ত্রী মোশাররফ হোসেন। তিনি বলেন, দেশ আগে যে অবস্থায় ছিল বর্তমানে সেই অবস্থানে নেই। দূর্বার গতিতে এগিয়ে আজ মধ্যম আয়ের দেশে পরিনত হতে চলেছে। তাই আয় বেশী বলেই, সরকার বিশ্ব ব্যাংকের লোন ছাড়াই পদ্মা সেতুর মতো বৃহত একটি কাজ শুরু করতে পেরেছে।

মন্ত্রী বলেন, একজনের কাছ থেকে বার বার কর আদায় না করে নতুন নতুন করদাতা খুঁেজ বের করার জন্য কর কর্মকর্তাদের পরামর্শ দেন। তিনি বলেন, দেশের মানুষ ট্যাক্স দিচ্ছে বলেই দেশ এগিয়ে যাচ্ছে। তাই তাদেরকে ভয়ভীতি না দেখিয়ে সুন্দর আচরণ এবং বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের মাধ্যমে কর আদায় করতে হবে। পাশপাশি কেউ তথ্য গোপন করে আয়ের বর্হিভূত সম্পদ অর্জন করে তবে তার জন্য কঠোর আইনের মাধ্যমে শাস্তির আওতায় আনার জন্য ঘোষনা দেন। মন্ত্রী আরো বলেন, স্বনির্ভর অর্থনীতি হচ্ছে দেশীয় অভ্যন্তরীণ সম্পদের উপর রাষ্ট্রের শতভাগ নির্ভরশীলতার প্রতি আয়কর দাতাদের আরো উৎসাহ সৃষ্টিতে বর্তমান সরকারের করণীয় বিষয় সমূহ এর প্রতি জোর দেন।

চট্টগ্রাম কর অঞ্চল -১ এর কমিশনার মাহাবুব হোসেনের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে-জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের সদস্য (এনবিআর) মোঃ ফিরোজ শাহ আলম বলেন, সম্মানিত করদাতাদের করভীতি দূর করার জন্য গ্রাহক ও করকর্তাদের সাথে পার্টনারশীপ এবং করের বোঝা সইতে না পারার জন্য বন্ধু সুলভ ব্যবহার রাজস্ব আদায়/কর আদায় সহজতর হবে বলে জানান। আয়কর বান্ধব রাজস্ব বিভাগ প্রতিষ্ঠা পেলেই সম্পদ শাল দেশ রাজস্ব বৃদ্ধিতে উন্নয়ন দ্রুত হবে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, বিভাগীয় কমিশনার শংকর রনজন সাহা, সংরক্ষিত মহিলা সাংসদ সাবিহা নাহার মুছা, পুলিশের বিভাগীয় ডিআইজি মোঃ শফিকুল ইসলাম, সিএমপি কমিশনার ইকবাল বাহার, চট্টগ্রাম চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম মেট্টোপলিটন চেম্বারার সভাপতি খলিলুর রহমান, কাষ্টম এন্ড ভ্যাট কমিশনার গোলাম কিবরিয়া প্রমুখ।

মেলায় আগত তিন প্রবীন করদাতা কে,এম তাজুল ইসলাম, নজির ভুইয়া এবং নজরুল ইসলাম অভিযোগ করে বলেন, কর গ্রহিতারা অহেতুক হয়রানী এবং করদিতে একটু দেরী হলেই নানা রকম ভয়ভীতি দেখিয়ে আমাদের কাছে অনৈতিক প্রস্তাব দেন। যাহা কাম্য হতে পারে না।

মেলায় আয়কর কর্মকর্তারা বলেন চট্টগ্রামে বিগত ২০০৮ সাল থেকে জাতীয় আয়কর দিবস এবং ২০১০ সাল থেকে নিয়মিত জাতীয় আয়কর মেলা করে জনগনের মধ্যে আয়কর দেওযার যে, ভীতি ছিল তা দুরী করণের মাধ্যমে চট্টগ্রামের চারটি কর অঞ্চল সম্মিলিত ভাবে জাতীয় রাজস্ব সংগ্রহে ব্যাপক ভুমিকা পালন করে চলেছে। তারই অংশ আজকের এ মেলা।

এছাড়া কর অঞ্চল সমূহের অধীনে কক্সবাজার জেলা ৪ দিন, রাঙ্গামাটির পার্বত্য জেলা ১দিন, সীতাকু-, চকরিয়াতে ২দিন, আনোয়ারা, পটিয়া, চন্দনাইশ, রাউজান, হাটহাজারী, বোয়ালখালী, সাতকানিয়ায় ১দিন এবং টেকনাফ উপজেলাতে ১দিনের ভ্রাম্যমান আয়কর মেলা আয়োজন করার তথ্য জানান। পরে অতিথিরা বেলুন উড়িয়ে আয়াকর মেলা-২০১৬এর শুভ উদ্বোধন করেন এবং মেলার স্টল ঘুরে দেখেন।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত