টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

রাউজান উপজেলা আ.লীগের সভাপতি বেবী চৌধূরীর জানাজায় মানুষের ঢল

এস.এম. ইউসুফ উদ্দিন
রাউজান প্রতিনিধি 

raozan-baby-chyচট্টগ্রাম, ২৭ অক্টোবর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস): চট্টগ্রামের রাউজান উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও পৌসভার সাবেক মেয়র উপজেলা গাউছিয়া কমিটির প্রধান উপদেস্টা আলহাজ শফিকুল ইসলাম চৌধুরী বেবী গতকাল (২৭অক্টোবর) বৃহস্পতিবার সকাল ৬.৩০ মিনিটে ইন্তেকাল করেন। ইন্না লিল­াহে ৃৃৃওইন্না ইলাহি রাজেউন। তিনি নিজ বাড়িতে তিনি হঠাৎ হ্রদ রোগে আক্রান্ত হয়ে ইন্তেকাল করেন। একইদিন বাদে মাগরীব রাউজান বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ মাঠে মরহুমের জানাযার নামাজ শেষে ছিটিয়া পাড়াস্থ পারিবারিক কবরস্থানে তার দাফন সম্পন্ন হয়। তার নামাজে জানাজায় হাজার হাজার শোর্কাত মানুষ অংশ গ্রহন করেন। তার নামাজে জানাজাটি স্মরণকালের বৃহত্তম জানাজায় পরিনত হয়। কলেজ মাঠটি শোকার্ত মানুষের উপস্থিতিতে কানায় কানায় পূর্ণ হয়। নামাজে জানাজায় ইমামতি করেন জামেয়া আহমদিয়া সুন্নিয়া আলিয়ার প্রধান ফকিহ আল্লামা মুফতি সৈয়দ অছিয়র রহমান আল-কাদেরী। উপজেলা আওয়ামীলীগের দুঃসময়ের কান্ডারী শফিকুল ইসলাম চৌধুরী বেবির মৃত্যুতে রাউজানের শোকের ছায়া নেমে আসে। উলে­খ্য তিনি রাহনুমায়ে শরীয়ত ও তরিক্বত গাউছে জামান আওলাদে রাসুল আল­ামা সৈয়দ মুহাম্মদ তাহের শাহ হুজুরের একনিষ্ট মুরীদ ছিলেন। তিনি সাজিনা চৌধুরী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা ও সালামত উল্লাহ স্কুলের সভাপতিসহ গুরুত্বপূর্ণ সামাজিক সংগঠনের সাথেও জড়িত ছিলেন জীবদ্ধশায়।

জানাজা নামাজের পূর্বে টেলিকন্ফারেন্সের মাধ্যমে ফ্রান্স থেকে গভীর শোক ও সমবেদনা জানিয়ে বক্তব্য প্রদান করেন স্থানীয় সাংসদ ও রেলপথ মন্ত্রণালয় বিষয়ক সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী। নামাজে জানাজায় উপস্থিত ছিলেন, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের সাবেক মেয়র ও মহানগর আওয়ামীলীগের সভাপতি এবিএম মহিউদ্দিন চৌথুরী, উত্তরজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ও চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক এম.এ সালাম, আনজুমানে রহমানিয়া সুন্নিয়া ট্রাস্টের ভাইস প্রেসিডেন্ট আলহাজ্ব মোহাম্মদ মহসিন, গাউছিয়া কমিটির কেন্দ্রীয় গাউছিয়া কমিটির চেয়ারম্যান আলহাজ্ব পেয়ার মুহাম্মদ কমিশনার, যুগ্ম সম্পাদক এডভোকেট মোসাহেব উদ্দিন বখতিয়ার, উত্তরজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ, ইউনুছ গণি চৌধুরী, গিয়াস উদ্দিন, এবিএম ফজলে শহিদ চৌধুরী, উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব এহসানুল হায়দর চৌধুরী বাবুল, ডা. শেখ শফিউল আজম, আলহাজ্ব নুর মোহাম্মদ, উপজেলা আওয়ামীলীগের সি.সহভাপতি কামাল উদ্দিন আহমেদ, উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক বশির উদ্দিন খান, জমির উদ্দিন পারভেজ প্রমুখ। জানাজা পূব্র্ বক্তব্য প্রদান করেন মরহুমের পূত্র সাইফুল ইসলাম চৌধুরী রানা, সোহেল আরিফ চৌধূরী। তাদের বক্তব্যে আবেগ আপ্লুত হয়ে উপস্থিত হাজার হাজার মানুষ চোখের পানি ধরে রাখতে পারেনি। এসময় এক হ্রদয় বিদারক দৃশ্যের অবতারণা হয়।

জানা যায়, প্রবীণ এই রাজনীতিক সকলের কাছে প্রিয় ছিলেন বেবী ভাই হিসাবে। তিনি রাউজানে ষাট দশক থেকে রাজনীতিতে সক্রিয় আছেন। প্রথম দিকে বাম রাজনীতির (ছাত্র ইউনিয়ন) সাথে জড়িত থাকলেও পরে তিনি আওয়ামীলীগে যোগদান করেন। তার রাজনৈতিক প্রজ্ঞা ও নীতি আদর্শের কারণে রাউজানের মানুষকে বঙ্গবন্ধু আদর্শের রাজনীতিতে সক্রিয় করতে সফল হন। তিনি রাউজান উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতির দায়িত্ব গ্রহণ করে দলটিকে তৃণমুল পর্যায়ে সংগঠিত করেন। মৃত্যুর পূর্ব সময় পর্যন্ত এই পদে থেকে তিনি সাংগঠনিক কাজ করেছেন রাউজানের সাংসদ এবিএম ফজলে করিম চৌধুরীর নেতৃত্বে। বেবী চৌধুরী নিজের রাজনৈতিক মেধাকে কাজে লাগিয়ে বিগত ইউপি নির্বাচনে উপজেলার সবকটি ইউনিয়নের নিজেদের সমর্থিত চেয়ারম্যান নির্বাচিত করেছেন। তার নেতৃত্বে থাকা উপজেলা আওয়ামীলীগের সর্বস্তরের নেতাকর্মী জাতীয় সংসদের নির্বাচনে ঐক্যবদ্ধ থেকে দলীয় প্রার্থী এবিএম ফজলে করিম চৌধুরীকে হেট্রিক বিজয়ী করার গৌবর অর্জন করেছেন। উলে­খ্য মরহুম শফিকুল ইসলাম চৌধুরী বেবী গত ৭অক্টোবর হজ্বব্রত পালন করে দেশে ফিরেছিলেন।

এদিকে তার মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করে বিবৃতি দিয়েছেন রাউজান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শামীম হোসেন, সহ সভাপতি আনোয়ারুল ইসলাম, যুগ্ম সম্পাদক ও রাউজান পৌরসভার প্যানেল মেয়র বশির উদ্দিন খান, যুগ্ম সম্পাদক চেয়ারম্যান ভূপেশ বড়ুয়া, সাংগঠনিক সম্পাদক আলমগীর আলী, জাফর আহমদ, দপ্তর সম্পাদক জসিম উদ্দিন চৌধুরী, ওসি কেপায়েত উল­াহ, আলহাজ্ব দিদারুল আলম চেয়ারম্যান, ইউপি চেয়ারম্যান আবদুর রহমান, মুক্তিযোদ্ধা শফিকুল ইসলাম চৌধুরী, লায়ন সাহাবুদ্দিন আরিফ, আব্বাস উদ্দিন আহমেদ, বিএম জসীম উদ্দিন হিরু, তছলিম উদ্দিন চৌধুরী, প্রিয়তোষ চৌধুরী, সৈয়দ আব্দুল জব্বার সোহেল, রাউজান উপজেলা কৃষক লীগ সভাপতি আবুল বশর বাবুল, সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম খোকন, রাউজান উপজেলা গাউসিয়া কমিটির সভাপতি অধ্যক্ষ ইলিয়াছ নুরী, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা ইয়াছিন হোসাইন হায়দরী, দক্ষিণ রাউজান গাউছিয়া কমিটির সভাপতি আহমেদ সৈয়দ, সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ হানিফ, নোয়াপাড়া ইউনিয়ন গাউছিয়া কমিটির সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ কামাল উদ্দিন, দক্ষিণ রাউজান পূজা কমিটির সভাপতি প্রকাশ শীল, সাধারণ সম্পাদক ম্যালকম চক্রবর্ত্তী, উপজেলা ছাত্রলীগের সি.সহসভাপতি সারজু মো.নাছের, সহ-সভাপতি শওকত হোসেন, দক্ষিণ রাউজান ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম, যুবলীগ নেতা আ.জ.ম রাশেদ, রাউজান প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি শফিউল আলম, জাহেদুল আলম, বেলাল উদ্দিন, মোরশেদ হোসেন চৌধুরী, নাছির উদ্দিন রকি, বর্তমান সভাপতি তৈয়ব চৌধুরী, সহ-সভাপতি সাহেদুর রহমান মোর্শেদ, সাধারণ সম্পাদক ও রাউজান অনলাইন প্রেসক্লাবের সভাপতি এস.এম ইউসুফ উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক নেজাম উদ্দিন রানা, সাবেক সাধারণ সম্পাদক্ এসএম ফখরুল ইসলাম, সহ-সভাপতি জাহাঙ্গীর নেওয়াজ, রমজান আলী, সাধারণ সম্পাদক গাজী জয়নাল আবেদীন, সাংগঠনিক সম্পাদক কামাল উদ্দিন, নাজিম উদ্দিন মিঞাজী, হাবিবুর রহমান, কেন্দ্রীয় ছাত্রসেনা নেতা আমান উল­াহ আমান, রাউজান উপজেলা জর্মাষ্টমী পরিষদের সাধারণ সম্পাদক তপন দে, নোয়াপাড়া কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি সৈয়দ মেজবাহ উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক মো.আরিফুল ইসলাম, তারেকুল ইসলাম তালুকদার, মনিরুল ইসলাম মুরাদ, ইমাম গাজ্জালী বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের সভাপতি সালাউদ্দিন, দক্ষিণ হিংগলা তৈয়বীয়া স্মৃতি সংসদের মোরশেদ আলম, এস জিলানী, সাইদুল ইসলাম, মঈনুদ্দিন জামাল চিস্তী, নোয়াপাড়া আইডিয়াল স্কুলের পরিচালকমো.আইয়ুব খান প্রমুখ।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত