টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

ফটিকছড়িতে নিরীহ ব্যক্তিকে ফাঁসাতে গিয়ে ফাঁসলেন নিজে !

মীর মাহফুজ আনাম
ফটিকছড়ি থেকে

চট্টগ্রাম, ১৩  অক্টোবর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস):: ফটিকছড়ি উপজেলায় এক নিরীহ রিকসাভ্যন চালককে মদ ব্যবসায়ী হিসেবে ফাঁসাতে গিয়ে অপর এক টমটম চালকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। আজ বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলা সদরের রাজঘাট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ নিয়ে তুলকালাম সৃষ্টি হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মো. রিদুয়ান নামের এক রিকসাভ্যান চালক নিয়মিত ভ্যান চালিয়ে সন্ধ্যায় ভ্যানটি রাজঘাট এলাকায় তালাবদ্ধ করে রাখেন। দীর্ঘদিন ধরে তাঁর সাথে ভাড়া নিয়ে বিরোধ বাধে স্থানীয় অপর টমটম রিকসা চালক মুহাম্মদ শফিকের। সেই সুবাদে টাকর বিনিময়ে তিনি কৌশলে রিদুয়ানকে ফাঁসাতে কৌশল অবলম্বন করেন। সেই সূত্রে গত বুধবার গভীর রাতে রিদুয়ানের গাড়ির নীচে তিনটি মদের বোতল সমেত একটি জার বেঁেধ রাখেন শফিক। খবর দেন ফটিকছড়ি থানার পুলিশকে। বৃহস্পতিবার সকালে রিদুয়ান গাড়ি নিয়ে বের হতে চাইলে সেখানে সাদা পোষাকে হাজির হয় ফটিকছড়ি থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মুহাম্মদ মাহাবুব আলম। তিনি রিদুয়ানকে মদ ব্যবসা করার অভিযোগ তুলে তাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসেন। পরে তাঁর স্বীকারোক্তি এবং স্থানীয় কয়েকজন সাংবাদিকের অনুরোধে ওসি বিষয়টি গুরুত্বের সাথে নিয়ে থানার সেকেন্ড অফিসার মুহাম্মদ ইখতিয়ারকে অধিকতর তদন্তের নির্দেশ দেন। উপ-পরিদর্শক (এসআই) ইখতিয়ার তদন্ত করে দেখেন বিষয়টি একটি সাজানো নাটক। অপর টমটম চালক ইর্ষান্বিত হয়ে রিদুয়ানকে ফাঁসানোর চেষ্টা করছে। পরে টমটম চালক মুহাম্মদ শফিককে আটক করে থানায় নিয়ে আসেন। সেখানে তিনি স্বীকার করেন যে, ইর্ষান্বিত হয়ে কাজটি করা হয়েছে। এ কাজে অপর এক ব্য্িক্তও সহযোগীতা করেছে। বর্তমানে সে থানায় পুলিশ হেফাজতে আটক রয়েছে। অন্যদেরর আটকের চেষ্টা চলছে।

ফটিকছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবু ইউসুফ মিয়া জানান, শফিকের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। তার বিরুদ্ধে প্রতারণাসহ বিভিন্ন অভিযোগে মামলা দায়ের করা হচ্ছে। তিনি এখন থানায় আটক রয়েছেন।

মতামত