টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

মানিকছড়ি কলেজে ভর্তি ফরম বিক্রির লক্ষাধিক টাকা লোপাট!

আবদুল মান্নান
মানিকছড়ি প্রতিনিধি 

চট্টগ্রাম, ০৫ অক্টোবর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস)::  মানিকছড়ি গিরিমৈত্রী ডিগি কলেজে এরার একাদশ শ্রেণিতে ভর্তি ফরম বিক্রির লক্ষাধিক টাকা ব্যাংক হিসাবে না রেখে আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে! কলেজে সূত্রে জানা গেছে,২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষে মানিকছড়ি গিরিৈিমত্রী ডিগি কলেজের একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির জন্য আটশতাধিক শিক্ষার্থী আবেদন করেন। প্রতিটি আবেদন ফরম ১শত টাকা হারে রশিদ ছাড়াই বিক্রি করা হয়। ফলে এ খাতে আয় হয়েছে ৮০হাজার টাকার অধিক। কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মংচাইঞো মারমার নিদের্শে ভর্তি ফরম বিক্রির টাকা কলেজের ব্যাংক হিসাবে জমা না করে প্রিন্সিপাল নিজেই গ্রহন করে পুরো টাকা নিজেই আত্মসাৎ করেন বলে অভিযোগ উঠেছে। সম্প্রতি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ কর্তৃক উপবৃত্তির তালিকায় স্বজনপ্রীতির অভিযোগ অনুসন্ধানে গেলে একে একে বের হয়ে আসে প্রিন্সিপালের অনিয়ম ও দুর্নীতির এ চিত্র। নাম প্রকাশ না করার শর্তে কলেজের একাধিক প্রভাষক সাংবাদিকদের জানান, অতীতে ভর্তি ফরম বিক্রির আয় কলেজ হিসাবে জমাপূর্বক ব্যয় করা হতো। আর ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ প্রভাব খাটিয়ে নিজেই প্রায় লক্ষাধিক টাকা কলেজের একাউন্টে জমা না দিয়ে হাতিয়ে নিয়েছেন। এ বিষয়ে কারো সাথে আলোচনা কিংবা পরামর্শের প্রয়োজনবোধ করেননি তিনি। কলেজের সভাপতিকে অবহিত করেননি!

এ বিষয়ে জানতে চাইলে গত ৪ অক্টোবর ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মংচাইঞো মারমা সাংবাদিকদের জানান, ভর্তির আয় বাবদ টাকা ভর্তি সংশ্লিষ্ট কাজে জড়িতদের মাঝে আনুপাতিক হারে বন্টন করা হয়েছে। এখানে কোন অনিয়ম হয়নি। এ বিষয়ে জানতে চাইলে কলেজ পরিচালনা কমিটির সভাপতি উপজেলা নির্বাহী অফিসার যুথিকা সরকার বলেন, ভর্তি ফরম বিক্রির অর্থ নিয়ম অনুযায়ী কলেজ ব্যাংক হিসাবে জমা হওয়ার কথা। কিন্তু প্রিন্সিপাল সে টাকা সর্ম্পকে আমাকে কিছুই জানায়নি। সভাপতি হিসাবে বিষয়টি খতিয়ে দেখবো।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত