টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

সাতকানিয়ার ডলুব্রীজে অবৈধ গাড়ি পার্কিংয়ে মানুষের ভোগান্তি চরমে

শহীদুল ইসলাম বাবর
বিশেষ প্রতিনিধি

satknaiaচট্টগ্রাম, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস):: দক্ষিণ চট্টগ্রামের সাতকানিয়ার ডলুব্রিজে অবৈধ গাড়ি পার্কিংয়ের ফলে শিক্ষার্থীসহ সাধারণ জনসাধারণকে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। এনিয়ে একাধিকবার সাতকানিয়া উপজেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভায় আলোচনার পর ব্রিজের উপর কোন ধরনের যানবাহন পার্কিং না করার সিদ্ধান্ত দেওয়া হলেও এ সিদ্ধান্ত কাগজে কলমে সীমাবদ্ধই থেকে যাচ্ছে। কোন অদৃশ্য শক্তির ইশারায় ডলু ব্রিজ থেকে অবৈধ গাড়ি পার্কিং সরানো যাচ্ছেনা তা সাধারণ মানুষের বোধগম্য নয়। তবে সিএনজি সংশ্লিষ্টরা বলছেন, কোন টামির্নাল না থাকা কারনে বাধ্য হয়েই ব্রিজের উপরে গাড়ি রাখা হয়েছে।

সূত্রে প্রকাশ, উপজেলার চরতী, আমিলাইশ, কাঞ্চনা, মাদার্ষা, সোনাকানিয়া ও এওচিয়ার জনসাধারণকে ডলুব্রিজ পার হয়ে সাতকানিয়া থানা, সাতকানিয়া আদালত, উপজেলা পরিষদে যোগাযোগ ও চট্টগ্রাম জেলা শহরে যাতায়াত করতে হয়। এর বাইরে আছে সাতকানিয়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়,সাতকানিয়া সরকারী কলেজ, সাতকানিয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়,সাতকানিয়া সরকারী কলেজ,সাতকানিয়া আর্দশ মহিলা কলেজের অন্তত ৫ হাজারেরও অধিক ছাত্র-ছাত্রীদেরকেও ডলুব্রিজ পার হয়ে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে যাতায়াত করতে হয়। তাছাড়া ব্যবসা বানিজ্যের কাজে চট্টগ্রামসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা উপরোক্ত এলাকার বাসিন্দাদের ছাড়াও মির্জাখীল দরবার শরীফের মুরিদরা দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে দরবার শরীফে আসার ক্ষেত্রে ডলু ব্রিজকেই ব্যবহার করে থাকেন। সঙ্গত কারনেই যোগাযোগের ক্ষেত্রে বেশ গুরুত্বপূর্ণ এ ডলুব্রিজ এলাকাটি জনসাধারণ চলাচলের জন্য উমুক্ত থাকার কথা থাকলেও চিত্র তার ঠিক উল্টো।

সরেজমিন পরিদর্শনে গিয়ে দেখা যায়, ডলু ডলু ব্রিজের বেশির ভাগ জায়গা দখল করে আছে (সিএনজি) অটো রিক্সা আর হাইওয়েচ গাড়ি। ফলে ঐ স্থান থেকে চলাচলরত হাজারো মানুষকে চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

চরতী ইউনিয়ন থেকে সাতকানিয়া থানা সদরে আসা লোকমান হাকিম বলেন, চরতী থেকে রিজার্ভ সিএনজি নিয়ে আমি উপজেলায় যাচ্ছিলাম। কিন্তু ডলুব্রিজের পশ্চিম পার্শ্বেই যানজটে আটকে পড়ি। গাড়ি থেকে নেমে হেটে ব্রিজ পার হতে গিয়ে দেখালাম ব্রিজের বেশির ভাগ অংশ দখল করে আছে সিএনজি গাড়ি ও হাইওয়েচ। তাদের গাড়ি গেুলো এমন ভাবে রাখা যাতে করে উভয় পাশ দিয়ে দুটি গাড়ি পার হতে চাইলেও দীর্ঘ যানজট তৈরী হয়ে যাচ্ছে।

রাস্তার উপর কেন গাড়ি রাখা হচ্ছে জানতে চাইলে সিএনজি অটো রিক্সা চালক বশির আহমদ সিটিজি টাইমসকে বলেন, এখানে অনেক যাত্রী, গাড়িও অনেক। কিন্তু সেই অনেক গাড়ি রাখার জায়গাতো এখানে নেই। তাই বাধ্য হয়ে ব্রিজের উপরে গাড়ি রাখছি। এ প্রসঙ্গে সাতকানিয়া পৌরসভার মেয়র মোহাম্মদ জোবায়ের বলেন, আমরা পৌরসভার পক্ষ থেকে এ বৎসরের ভিতরেই একটি বাস টার্মিনাল করার জন্য চেষ্টা করছি। টার্মিনাল হলেই তাদের সেখান থেকে সরিয়ে দিব। তাদের সিএনজি অটো রিক্সা সংশ্লিষ্টদের অনুরোধেই তাদের সেখানে থাকার সুযোগ দিচ্ছি। তবে তাদের বলা আছে কোন ধরনের যানজট যেন তৈরী না হয় সেদিকে সজাগ দৃষ্টি রাখতে হবে।

মতামত