টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

মিরসরাইয়ে গরু চুরির অপবাদ দিয়ে দুই নৈশ প্রহরীর উপর হামলার অভিযোগ

এম মাঈন উদ্দিন
মিরসরাই প্রতিনিধি

চট্টগ্রাম, ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস):: মিরসরাইয়ে গরু চুরির অপবাদ দিয়ে দুই নৈশ প্রহরীর উপর হামলার অভিযোগ পাওয়া গেছে এক গরু ব্যবসায়ী ও তার লোকজন বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার (৮ সেপ্টেম্বর) উপজেলার চৈতন্যারহাট বাজারে এই ঘটনা ঘটে। আহত দুই নৈশ প্রহরী হলেন দক্ষিণ সোনাপাহাড় এলাকার মৃত দেলোয়ার হোসেনের পুত্র নুরুল আলম (৪০) ও একই এলাকার নুরনবীর পুত্র মোঃ মিজানুর রহমান (২৮)। আহত দুইজনকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স মস্তাননগর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহত মিজান জানান, আমরা দুইজন গত ৮ মাস ধরে চৈতন্যারহাট বাজারে নৈশ প্রহরীর দায়িত্ব পালন করে আসছি। গত বুধবার রাতে দায়িত্ব পালন শেষে করে ভোরে বাজারের পূর্ব পাশে একটি হোটেলে বসে নাস্তা করছিলাম। এসময় স্থানীয় গরু ব্যবসায়ী মোঃ মিয়া আমাদেরকে তার গরুর খামারে ডেকে নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে বলে তার খামার থেকে ৬টি গরু চুরি হয়েছে এবং আমরা সেগুলো চুরি করেছি বলে মিথ্যা অপবাদ দেয়। এসময় কিছু বুঝে উঠার আগে মিয়ার সাথে থাকা রুবেল, ইউসুফ, ইকবাল সহ আরো ৮-১০জন লোক আমাদের বেঁধে এলোপাতাড়ি মারতে থাকে। পরে বাজার কমিটির লোকজন এসে কোন গরু চুরি হয়নি। খামারে গিয়ে দেখে সব গরু রয়েছে। শুধু শুধু মিথ্যা চুরির অপবাদ দিয়ে আমাদের বেদড়ক পিটিয়েছে গরু ব্যবসায়ী মিয়া ও তার লোকজন।

এ বিষয়ে চৈতন্যারহাট বাজার কমিটির সভাপতি বেনুতোষ দাশ বলেন, বৃহস্পতিবার সকালে আমি গরু চুরির খবর পেয়ে বাজারে ছুটে আসি। এসে দেখি শত শত মানুষ উপস্থিত রয়েছে বাজারে। আহত অবস্থায় বাজারের দুই নৈশ প্রহরীকে দেখতে পাই। আমি বিষয়টি তাৎক্ষনিকভাবে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আবু সুফিয়ান বিপ্লবকে অবহিত করেছি। এসময় গরু ব্যবসায়ী মোহাম্মদ মিয়াকে তার খামারে কয়টি গরু ছিলো জিজ্ঞেস করলে তিনি সঠিক সংখ্যা বলতে পারেনি। গরুর খামারে থাকা এক কর্মী জানান, তাদের খামারে ২৭টি গরু ছিলো। তখন আরো কয়েকজনকে নিয়ে গগনা করে দেখি খামারে ২৭টি গরু রয়েছে। এবার গরু ব্যবসায়ী রক্ষা পেতে দুই নৈশ প্রহরীকে পুলিশের হাতে তুলে দেই। পরে আমরা থানা থেকে তাদের ছাড়িয়ে নিয়ে আসি। চিকিৎসার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা করানো হয়। এ বিষয়ে চেয়ারম্যানের উপস্থিতি বৈঠক হওয়ার কথা রয়েছে বলে জানান তিনি।

এ ব্যাপারে দুর্গাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু সুফিয়ান বিপ্লব বলেন, বাজার কমিটির সভাপতি ঘটনাটি আমাকে অবহিত করেছে। আমি আজ সন্ধ্যায় সবাইকে নিয়ে বেঠকের মাধ্যমে সমস্যার সমাধান করার চেষ্টা করবো।

এদিকে অন্যায়ভাবে দুই নিরীহ নৈশ প্রহরীর উপর হামলার বিচারের দাবীতে বিক্ষোভ করেছে এলাকাবাসী। তারা গরু ব্যবসায়ী মিয়া ও তার লোকজনের বিচার দাবী করেছেন।

মতামত