টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

টেকনাফে আলো’র ৫ম শাহাদত বার্ষিকী পালিত

আমান উল্লাহ আমান
টেকনাফ (কক্সবাজার) প্রতিনিধি

teknafচট্টগ্রাম, ০৭ সেপ্টেম্বর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস)::  খতমে কোরআন, খতমের তাহলীল, মিলাদ ও দোয়া মাহফিল, আলোচনা সভা, এতিম-মিসকিনদের মাঝে বস্ত্র বিতরণ এবং ইসলামী সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজনসহ বিভিন্ন কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে টেকনাফে শহীদ আলী উল্লাহ আলোর ৫ম শাহাদত বার্ষিকী পালিত হয়েছে।

৭ সেপ্টেম্বর বুধবার সকাল ১০ টা থেকে বায়তুশ শরফ মোহাম্মদীয় রিয়াদুল জন্নাহ দাখিল মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে শহীদ আলী উল্লাহ আলো স্মৃতি ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে এ কর্মসূচী পালিত হয়।

এ উপলক্ষে সকাল ৯ টায় খতমে কোরআন, ১০ টায় খতমে তাহলীল, দুপুর ১১ টায় মিলাদ ও দোয়া মাহফিল, দুপুর ১২ টায় নাফ নদী শিল্পী গোষ্টীর ইসলামী সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও বিকাল ৩ টায় আলোচনা সভা এবং এতিম-মিসকিনদের মাঝে বস্ত্র বিতরণ করা হয়। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন টেকনাফ উপজেলা বিএনপির সাধারন সম্পাদক, শাহীদ আলী উল্লাহ আলো স্মৃতি ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ও শহীদ আলোর পিতা মোহাম্মদ আবদুল্লাহ। সদর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান ও আলোর দাদা আলহাজ্ব আলী আহমদের সভাপতিত্বে ও রিয়াদুল জন্নাহ দাখিল মাদ্রাসার সহকারি শিক্ষক মোঃ জাকারিয়ার পরিচালনায় সভায় আলোর স্মৃতিচারণ করে বক্তব্য রাখেন, টেকনাফের তরুন নেতা ও আলোর চাচা জিয়াউর রহমান, ফারইষ্ট ইসলামী লাইফ ইন্সুরেন্সের টেকনাফ ইনচার্জ মাওঃ সাইফুল ইসলাম সাইফী, সমাজ সেবা অফিসের কর্মকর্তা গিয়াস উদ্দিন প্রমূখ। এসময় উপস্থিত ছিলেন, বায়তুশ শরফ মোহাম্মদীয় রিয়াদুল জন্নাহ দাখিল মাদ্রাসা সুপার মাওঃ আমির আহমদ, সহকারি সুপার মাওঃ সাইফুল ইসলাম, সহকারি মাওঃ বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী, আলোর চাচা আবদুর রহমানসহ মাদ্রাসার শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ এলাকার সর্বস্তরের জনতা।

এর আগে নাফ নদী ইসলামী শিল্পী গোষ্টীর পরিচালনায় ইসলামী সংগীত, হামদ, নাত ও কৌতুক পরিবেশন করা হয়। এতে শাহ নেওয়াজ, এনামুল হক, আবদুল মালেক, ইব্রাহীম হানিফ, মোহাম্মুদুল হাসান, মোঃ রফিক, মোঃ ইউনুছ, নাসির উদ্দিন, জান্নাতুল বকেয়া রাহমানু, মুনতাসির মাহমুদ জুহান, তাসনিয়া আরেফিন রিমা প্রমূখ অনুষ্ঠানকে মাতিয়ে তুলেন।

এসময় বক্তারা আলোর বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করে বলেন, একটি পরিবারকে ধ্বংস করার জন্য একজন নিষ্পাপ শিশুকে পরিকল্পিতভাবে নৃশংসভাবে জবাই করে হত্যা করা হয়েছে। এমন হত্যাকান্ডের ৫ বছর অতিবাহিত হলেও এ পর্যন্ত খুনিদের ইন্দনদাতাদের আটক করতে পারেনি আইনশৃংখলা বাহিনী। টেকনাফের ইতিহাসে বর্বরোচিত, হৃদয় বিদারক, জগন্যতম ও চাঞ্চল্যকর শহীদ আলী উল্লাহ আলোর হত্যাকারীদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবী জানান। আলোচনা সভা শেষে এতিম-মিসকিনদের মাঝে আলো স্মৃতি ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে বস্ত্র বিতরণ করা হয়। এসময় আলোর পিতা মোঃ আবদুল্লাহ আলোর স্মৃতি ধরে রাখতে বছর ব্যাপী হিফযুল কোরআন প্রতিযোগীতা, শিক্ষা বৃত্তি, এতিম-মিসকিনদের মাঝে সাহায্যসহ বিভিন্ন উদ্যোগের ঘোষনা দেন।

উল্লেখ্য, গত ২০১১ সনের ৭ সেপ্টেম্বর টেকনাফ উপজেলা বিএনপির সাবেক সাধারন সম্পাদক মোঃ আবদুল্লাহর শিশুপুত্র ও টেকনাফ বিজিবি স্কুলের ১ম শ্রেনীর ছাত্র আলী উল্লাহ আলোকে ভাড়াটিয়া খুনিরা তার নিজ বাড়ীর কাচারী ঘরে নির্মমভাবে জবাই করে হত্যা করেছিল। এ হত্যাকান্ডের ৫ বছর অতিবাহিত হলেও হত্যার মূল ইন্দন দাতারা এখনো ধরা ছোঁয়ার বাইরে রয়েছে। এমনিক ওই অদৃশ্য শক্তি ও হত্যা পরিকল্পনাকারী গডফাদাররা কৌশলে মামলার আসামী সুমনকে জামিনে মুক্ত করে তাকেও হত্যার চেষ্টা করেছিল। আলোর ৫ম বার্ষিকীতে জগন্যতম এই হত্যার বিচার দাবী করেছেন টেকনাফের সচেতন মহল।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত