টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

ইসলাম প্রতিষ্ঠার মৌলিক কাজ গুলো বঙ্গবন্ধুই বেশী করেছে: নদভী এমপি

জাতীয় শোক দিবসের আলোচনায় নদভী এমপি

শহীদুল ইসলাম বাবর
বিশেষ প্রতিনিধি

satkaniaচট্টগ্রাম, ১৫ আগস্ট (সিটিজি টাইমস):  সাতকানিয়া-লোহাগাড়া আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য ও ইসলামিক ফাউন্ডেশনের গর্ভণর প্রফেসর ড. আবু রেজা মো: নেজামুদ্দীন নদভী বলেছেন, দেশে অনেক ইসলামী দল ও ব্যাক্তিত্ব থাকলেও বাংলাদেশে ইসলামের প্রচার ও প্রসারে বঙ্গবন্ধু জাতীর জনক শেখ মুজিবুর রহমান মাত্র সাড়ে তিন বছর সময়ে ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠাসহ নানা কর্মকান্ত সংগঠিত করেছে। দীর্ঘ দিন বাংলাদেশে বিএনপি ও জামায়াত সরকারে থাকলেও তারা উল্লেখ যোগ্য কোন কাজ করেনি। তিনি সোমবার দুপুরে সাতকানিয়া উপজেলা প্রশাসনের উদ্যেগে আয়োজিত জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪১তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে জাতীয় শোক দিবসের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ উল্যাহর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন, সাতকানিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান মো. জসিম উদ্দিন, ভাইস চেয়ারম্যান মোহাম্মদ ইব্রাহীম চৌধুরী, সহকারী কমিশনার ভূমী আসিফ ইমতিয়াজ, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এম এ মোতালেব সিআইপি, সহ-সভাপতি মাষ্টার ফরিদুল আলম, মোজাম্মেল হক, বশির আহমদ চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক কুতুব উদ্দিন চৌধুরী, পৌর মেয়র মোহাম্মদ জোবায়ের, সাংবাদিক সৈয়দ মাহফুজুন্নবী খোকন,আওয়ামীলীগের যুগ্ন সম্পাদক মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন, হোসেন কবির, সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাম্মদ শাহজাহান,দপ্তর সম্পাদক সাইদুর রহমান দুলাল ও সাতকানিয়া যুবলীগ সভাপতি একেএম আসাদ। সভায় প্রফেসর নদভী আরো বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তার জীবদ্দশায় অনেক গুণী আলেমদের সংর্স্পশে ছিলেন। তাই তিনি কম সময়ের মধ্যে ইসলামের প্রসারে কাজ করতে পারছেন। আর যারা এখন রাজনীতির মাঠে ইসলাম প্রতিষ্ঠার কথা বলে তারা ইসলাম প্রতিষ্ঠার জন্য কোন মৌলিক কাজ করেনি। প্রতিটি উপজেলায় একটি করে সুরম্য মসজিদ তৈরী করবে সরকার। একটি মসজিদে অন্তত ৫ কোটি টাকা ব্যায় করা হবে। সারা দেশে ৫শ ৬০টি মসজিদ তৈরী করার জন্য অর্থ দিচ্ছে সৌদি সরকার। এটির সাথে একটি ইসলামিক কালচারাল সেন্টার থাকবে। এ সেন্টারের মাধ্যমে ইসলামে ব্যাপক প্রচার ও প্রসার হবে বলে আমি মনে করি।

মতামত