টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

আজ রাঙ্গুনিয়ার গ্রামের বাড়িতে শেষকৃত্য রণজিৎ বিশ্বাসের

ড. রণজিৎ কুমার বিশ্বাসের মৃত্যুতে ড. হাছান মাহমুদ এমপি’র শোক

আব্বাস হোসাইন আফতাব
রাঙ্গুনিয়া প্রতিনিধি

ছবিঃঅনুপম বড়ুয়া

ছবিঃঅনুপম বড়ুয়া

চট্টগ্রাম, ২৪ জুন (সিটিজি টাইমস):: সরকারের সাবেক সিনিয়র সচিব ও নন্দিত ক্রীড়া-রম্যলেখক, কথা সাহিত্যিক ড. রণজিৎ কুমার বিশ্বাসের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন সাবেক মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এমপি। তিনি প্রয়াতের আত্মার শান্তি কামনা করেছেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন।

উলে­খ্য ড. রণজিৎ কুমার বিশ্বাস চট্টগ্রাম সার্কিট হাউসে বৃহষ্পতিবার(২৩ জুন) বিকাল ৩ টায় মৃত্যুবরন করেন । তিনি দীর্ঘদিন ধরে ডায়াবেটিসে ভুগছিলেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬০ বছর। অভিষেক বিশ্বাস হীরা ও উপমা বিশ্বাস মুক্তা নামের দুই সন্তানের জনক তিনি। শুক্রবার (২৪ জুন) সন্ধ্যায় তাঁর গ্রামের বাড়ি রাঙ্গুনিয়া উপজেলার পোমরা ইউনিয়নের দক্ষিন পোমরার শ্রী শ্রী দক্ষিণেশ্বরী কালী মাতা মন্দিরের পাশে পৈত্রিক শ্মশানে তাঁর শেষকৃত্য অনুষ্ঠিত হবে বলে স্বজনরা জানিয়েছে।

ড. রণজিৎ কুমার বিশ্বাস চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া উপজেলার পোমরা গ্রামে ১৯৫৬ সালের ১ মে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা অপর্ণাচরণ বিশ্বাস ছিলেন স্কুল শিক্ষক। মাতা মৃত ¯েœহলতা বিশ্বাস। দুইভাই ও চার বোনের মধ্যে তিনি তৃতীয়।

তিনি কাপ্তাই প্রজেক্ট স্কুলে পড়াশোনা শুরু করেন। তাঁর বাবা এই স্কুলে শিক্ষকতা করতেন। ১৯৭০ সালে তিনি এসএসসি পাস করেন। চট্টগ্রাম কলেজ থেকে এইচএসসি ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে উদ্ভিদবিদ্যা বিভাগে ¯œাতকোত্তর ডিগ্রি লাভ করেন। তিনি চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত অবস্থায় ১৯৭৩ সালে দৈনিক স্বাধীনতা পত্রিকায় সাংবাদিকতা শুরু করেন। জীবনের নানা ব্যস্ততার মধ্যেও মৃত্যুর আগ পর্যন্ত তিনি দেশের বিভিন্ন পত্র-পত্রিকায় লেখালেখি করতেন। খেলাধুলা, মানবতা, মুক্তিযুদ্ধ ও রম্যবিষয়ক লেখালেখি পাঠকপ্রিয়তা লাভ করেন। তিনি দৈনিক পত্রিকার নিয়মিত লেখক ছিলেন। প্রগতিশীল সাংস্কৃতিক কর্মকান্ডে তার সরব ও উজ্জ্বল উপস্থিতি ছিল।

১৯৮১ সালে বিসিএস পরীক্ষার পর পিআইডিতে যোগদান করেন। পরবর্তীতে বদলি হয়ে চট্টগ্রামে পিআইডির আঞ্চলিক অফিসে দায়িত্ব পালন করেন। ৮৬ সালে ফের বদলি হয়ে ঢাকায় ফিরে যান। সেই থেকে ঢাকায় অবস্থান নেন। এছাড়াও বাংলাদেশ চিনি ও খাদ্যশিল্প করপোরেশনের চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেছেন তিনি। ২০১১ সালের ১৪ মার্চ সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিবের দায়িত্ব পাওয়ার পর একই বছরের ১০ অক্টোবর একই মন্ত্রণালয়ের সচিব হিসেবে পদোন্নতি পান। ২০১৩ সালের ২৫ মার্চ সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব হন তিনি। দুইদিন আগে রণজিৎ বিশ্বাস সিনিয়র সচিব হিসেবে পদোন্নতি পান। যোগাযোগ মন্ত্রণালয়, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের উপ-প্রেস সচিব পদে দায়িত্ব পালন করেছেন। ৩৪ বছর সরকারি চাকরি করার পর সরকারের সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব থেকে অবসরে যান।গত বছরের ১ মে তিনি অবসরোত্তর (পিআরএল) ছুটিতে যান। চলতি বছরের ৩০ এপ্রিল সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব থেকে অবসরে যান।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত