টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

১৫ বছরে ৯ গুণ বেড়েছে ক্রিকেটারদের বেতন!

চট্টগ্রাম, ৩০ এপ্রিল (সিটিজি টাইমস)::  ২০০১ সালে সর্বপ্রথম জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের কেন্দ্রীয় চুক্তির আওতায় আনে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। সে সময় আমিনুল ইসলাম বুলবুল, আকরাম খান, নাঈমুর রহমান দুর্জয়রা মাসিক বেতন পেতেন ৩৩ হাজার টাকা। তবে গত ১৫ বছরে দেশের শীর্ষস্থানীয় ক্রিকেটারদের বেতন বেড়েছে ৯ গুণ।

শুধু বেতন খাত থেকেই মুশফিকুর রহিমের আয় এখন মাসে ৩ লাখ টাকা! তামিম, সাকিবের অংক সেখানে ২ লাখ ৯০ হাজার টাকা, মাশরাফির ২ লাখ ৮৫ হাজার টাকা, মাহমুদউল্লাহর বেতন মাসে ২ লাখ ৫০ হাজার টাকা।

শুধু শীর্ষ ক্রিকেটার নন গত ১৫ বছরে বিসিবির কেন্দ্রীয় চুক্তির সকল গ্রেডে বেতনের অংক বেড়েছে। ২০০১ সালে ‘বি’ গ্রেডের ক্রিকেটাররা মাসে ২২ হাজার টাকা বেতন পেতেন। এখন সেই গ্রেডের ক্রিকেটার নাসির হোসেন, ইমরুল কায়েসরা পাচ্ছেন ১ লাখ ৫০ হাজার টাকা করে। ‘সি’ গ্রেডের বেতন ছিল তখন ১৫ হাজার টাকা। এখন তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১ লাখ ১২ হাজার টাকা।

এখন নির্বাচকদেরও ছাড়িয়ে গেছে ক্রিকেটারদের বেতন। প্রধান নির্বাচক ফারুক আহমেদের মাসিক বেতন (১ লাখ ৩৫ হাজার টাকা) ‘ ‘বি’ গ্রেডের ক্রিকেটারদের বেতনের (১ লাখ ৫০ হাজার টাকা) চেয়েও কম! অন্য ২ নির্বাচক মিনহাজুল আবেদিন নান্নু এবং হাবিবুল বাশার সুমনের বেতন (১ লাখ ১৫ হাজার টাকা) বর্তমানে ‘সি’ গ্রেডের ক্রিকেটারদের বেতনের (১ লাখ ১২ হাজার ৫০০ টাকা) কাছাকাছি।

বিসিবির আয়ের সাথে পাল্লা দিয়ে বেড়েছে ক্রিকেটারদের বেতন। গত বছরে যেখানে ১৪ ক্রিকেটারের বার্ষিক বেতন খাতে বিসিবিকে গুনতে হয়েছে ২ কোটি ২৫ লাখ ৬০ হাজার টাকা, সেখানে এ বছর ৪ গ্রেডে চুক্তিবদ্ধ ১৪ ক্রিকেটারের বেতনের জন্য বিসিবিকে গুণতে হবে ২ কোটি ৭৩ লাখ ৩০ হাজার টাকা। সূত্র: দৈনিক ইনকিলাব

মতামত