টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

চট্টগ্রামে ফার্নিচারের রং দিয়ে আইসক্রীম!

1চট্টগ্রাম, ১৩ মার্চ (সিটিজি টাইমস) :: চট্টগ্রাম নগরীর চান্দগাঁও থানার চেয়ারম্যান ঘাটা এলাকায় কোহিনুর আইসবার ও লাকী আইসবার ফ্যাক্টরী  মাছের বরফ বানানোর লাইসেন্স নিয়ে সেখানো বানানো হচ্ছে আইসক্রিম।

শুধু তাই নয়, অস্বাস্থ্যকর ও নোংরা পরিবেশে ফার্নিচারের রং ও সেকারি (ঘনচিনি) দিয়ে তৈরী করা হচ্ছে মালাই আইসক্রিম।

রোববার (১৩ মার্চ) সকাল ১১ টা থেকে দুপুর ২ টা পর্যন্ত ভ্রাম্যমান আদালতের এ অভিযানে দুটি প্রতিষ্ঠান অভিযান চালিয়ে এ চিত্রই দেখতে পান চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রুহুল আমিন নেতৃত্বে পরিচালিত ভ্রাম্যমান আদালত।  সিলগালা পাশা-পাশি এ সময় সাথে কোহিনুর আইসবারকে করা হয়েছে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা।

চান্দগাঁও থানার চেয়ারম্যান ঘাটা এলাকায় কোহিনুর আইসবার মাছে ব্যবহার করা বরফ তৈরীর লাইসেন্স নিয়ে অস্বাস্থ্যকর ও নোংরা পরিবেশে আইসক্রীম বানাচ্ছে। সেগুলো প্যাকেটে ভরে মালাই আইসক্রীম হিসেবে বিক্রি করছে জানিয়ে,ভ্রাম্যমান আদালতের নেতৃত্বদানকারী চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রুহুল আমীন বলেন,  এসকল আইসক্রীম বানানোর জন্য কোন উপকরণ নাই। কাঠের ফার্নিচারে যে রং ব্যবহার করা হয় সেই রং দিয়ে আইসক্রীম বানানো হচ্ছে। চিনির বদলে ব্যবহার করা হচ্ছে সেকারিন (ঘনচিনি)। এসব অনিয়মের কারণে কোহিনুর আইসবারকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা ও একই সাথে কারখানা সিলগালা করা হয়েছে। তাদের বানানো ৩ হাজার পিস আইসক্রীম ধ্বংস করা হয়েছে বলে জানান রুহুল আমীন।

এদিকে, চেয়ারম্যান ঘাটা এলাকার লাকী আইসবার নামক আইসক্রীম কারখানায়ও একই চিত্র দেখা যায়। এসময় কারখানার মালিককে না পাওয়া কারখানা সিলগালা করা হলেও কোনো জরিমানা করা হয়নি বলে জানান ম্যাজিস্ট্রেট রুহুল আমীন।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত