টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

নিভে গেল গৃহকর্মী বুলবুলের জীবন প্রদীপ

 চট্টগ্রাম, ১১ মার্চ (সিটিজি টাইমস) ::অপারেশন থিয়েটারেই (ওটি) জীবন-প্রদীপ নিভে গেল পাঁচতলা থেকে ‘পরে গুরুতর আহত’ মেয়েটির। ডাক্তারদের সব চেষ্টাই ব্যর্থ করে দিয়ে না ফেরার দেশে চলে গেল মেয়েটি।  হাজারীগলির নির্মাণাধীন ভবন থেকে পরে গুরুতর আহত গৃহকর্মী বুলবুল (১৪) মারা গেছে।

বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সোয়া দুইটার দিকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

তবে আন্দরকিল্লা ওয়ার্ডের কাউন্সিলর জহর লাল হাজারী বলেন, বর্তমানে মরদেহটি মর্গে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে ময়নাতদন্তের জন্য। এরপর মেয়েটির পরিবার যদি চায় হত্যা মামলা দায়ের হবে। হাজারী লেন, বকশির হাট, আন্দরকিল্লাসহ বড় একটি এলাকার মানুষ মেয়েটির মৃত্যুর রহস্য জানতে চায়। রাত ১১টায় একটি মেয়ে কেন একটি নির্মাণাধীন ভবনের পাঁচতলায় উঠতে যাবে! কেউ যদি জোর করে নিয়ে না যায়। কেউ যদি ধাক্কা না দেয় তবে কেন সে পড়ে যাবে!

তিনি  বলেন, ‘রাত ১১টার দিকে বুলবুল পাঁচতলার উপর থেকে পড়ে গুরুতর আহত হয়। পরে হাসপাতালের চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত দুইটার পরে তার মৃত্যু হয়েছে। ’

কোতোয়ালী থানার এসআই মোস্তফা কামাল  বলেন, ‘হাজারীগলিতে নির্মাণাধীন ভবন থেকে পড়ে গুরুতর আহত অবস্থায় এক গৃহকর্মীকে হাসপাতাল ভর্তি করা হয়। স্থানীয়রা বলছে ওই কিশোরীকে ভবনের উপর থেকে ফেলে দিয়ে হত্যা করা হয়েছে। তবে পুলিশ তেমন কোন আলামত পায়নি। আমাদের অনুসন্ধান চলছে।’

স্থানীয় সূত্র জানায়, নিহত কিশোরী স্থানীয় বাসিন্দা সুবিমল কান্তি দাশ ও পান্না ধর দম্পতির বাসায় দীর্ঘদিন ধরে গৃহকর্মী হিসেবে কাজ করে আসছিল।

মতামত