টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

চট্টগ্রামে ব্যক্তিগত গাড়ি নিরুৎসাহিত করার আহ্বান

gariচট্টগ্রাম, ১৬ জানুয়ারি (সিটিজি টাইমস) :  টেকসই পরিবহন ব্যবস্থার স্বার্থে ব্যক্তিগত গাড়ি নিরুৎসাহিত করে গণপরিবহনের দিকে মনোযোগ দেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন পরিকল্পিত চট্টগ্রাম ফোরামের নেতারা।

শনিবার নগরীর জিয়া স্মৃতি জাদুঘর কনফারেন্স হলে ফোরাম আয়োজিত ‘টেকসই পরিবহন ব্যবস্থা ও চট্টগ্রাম’ শীর্ষক এক নাগরিক সংলাপে এ আহ্বান জানান তারা।

নাগরিক সংলাপে ‘টেকসই পরিবহন ব্যবস্থা ও চট্টগ্রাম’র উপর প্রবন্ধ পাঠ করেন ফোরামের সহ-সভাপতি প্রকৌশলী সুভাষ চন্দ্র বড়ুয়া।

তিনি বলেন, “পরিবহন ব্যবস্থাপনার উপর দেশে কোনো ইনস্টিটিউশন নাই। তাই এখানে কোনো আরবান ট্রান্সপোর্ট প্ল্যানিংও নাই। ফলে যানজট নিত্য সমস্যায় পরিণত হয়েছে।”

সড়কে ব্যক্তিগত গাড়ির আধিক্য সমস্যা বাড়াচ্ছে মন্তব্য করে সুভাষ বড়ুয়া বলেন, “সেটাকে নিয়ন্ত্রণ করে গণপরিবহন চালু করতে হবে। “

অপরিকল্পিত উন্নয়ন থামাতে প্রয়োজনে আদালতের আশ্রয় নেওয়ার কথা বলেন নগর ও অঞ্চল পরিকল্পনাবিদ আলী আশরাফ।

তিনি বলেন, “অপরিকল্পিত যে উন্নয়ন হচ্ছে সেটা থামাতে প্রয়োজনে আদালতের আশ্রয় নেওয়া যায়; কারণ আমাদের আহ্বান তো কর্তারা শুনছেন না। “

ট্রাফিক সিস্টেম ঠিক রাখতে সবার আইন মেনে চলার সংস্কৃতি তৈরি করাও দরকার বলে মনে করেন তিনি।

ফোরামের সভাপতি ইস্ট ডেল্টা ইউনিভার্সিটির উপাচার্য অধ্যাপক মু. সিকান্দার খানের সভাপতিত্বে আলোচনা পর্ব সঞ্চালনা করেন প্রকৌশলী দেলোয়োর মজুমদার।

ট্রাফিক জ্যাম কমাতে স্কুল ও অফিসের সময় পরিবর্তন করা যায় কিনা সেটা ভেবে দেখার আহ্বান জানান প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক বিদ্যুৎ কান্তি নাথ।

গণপরিবহনকে টেকসই করতে বাসের জন্য আলাদ লেইন করা যায় বলে মত দেন রাজনীতি কর্মী হাসান মারুফ রুমি।

সংলাপে অন্যদের মধ্যে চট্টগ্রাম আইনজীবী সমিতির সভাপতি মুজিবুল হক, স্থপতি জেরিনা হোসাইন, ইসলামিয়া বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের শিক্ষক মুছা কলিমুল্লাহ, সংস্কৃতি কর্মী রাশেদ হাসান ও পরিবেশ কর্মী মাহবুব সুমন উপস্থিত ছিলেন।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত