টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

বন্দুকযুদ্ধে দুই জঙ্গি নিহত

চট্টগ্রাম, ১৪ জানুয়ারি (সিটিজি টাইমস) : বাংলাদেশে নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন জামাআতুল মুজাহিদিন (জেএমবি)-র ন্যাশনাল কমান্ডার আব্দুল্লাহ নোমান ও ঢাকা ডিভিশনাল কমান্ডার হিরন ওরফে কামাল ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছেন।

বুধবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে রাজধানীর হাজারীবাগে শিকদার মেডিকেলের পেছনে বেড়িবাধ এলাকায় জঙ্গিদের সঙ্গে ডিবি পুলিশের বন্দুকযুদ্ধের এ ঘটনা ঘটে। এসময় তাদের কাছ থেকে আশুলিয়ায় পুলিশ হত্যার অপারেশনে ব্যবহৃত সাইকেল ও বেশ কিছু অস্ত্র ও ধারালো ছুরি উদ্ধার করা হয়েছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) দক্ষিণ বিভাগের এডিসি ছানোয়ার হোসেন। তিনি জানান, কিছুদিন আগে মিরপুর থেকে আটক জঙ্গিদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ী রাতে কামরাঙ্গীরচর থেকে তিন জঙ্গিকে আটক করেন তারা।

পরে তাদের দেয়া তথ্য অনুযায়ী রাত সাড়ে ১০টার দিকে শিকদার মেডিকেলের পেছনে বেড়িবাধে অবস্থান নেয় পুলিশ। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে গ্রেনেড নিক্ষেপ ও গুলিবর্ষণ করে জঙ্গিরা। আত্মরক্ষার্থে পুলিশ পাল্টা গুলি ছুড়লে জেএমবির ন্যাশনাল কমান্ডার আব্দুল্লাহ নোমান ও ঢাকা ডিভিশনাল কমান্ডার হিরন ওরফে কামাল গুলিবিদ্ধ হন।

পরে ঘটনাস্থল থেকে ওই দুই জঙ্গিকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় প্রথমে শিকদার মেডিকেলে পরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

তিনি আরও বলেন, হিরন ওরফে কামাল রাজধানীর দারুস সালাম থানাধীন গাবতলীর পর্বত সিনেমা হলের সামনের চেকপোস্টে পুলিশ সদস্য ইব্রাহিমকে হত্যা করেছিল। এছাড়া হিরন আশুলিয়াতেও পুলিশ সদস্যদের উপর হামলার মূল হোতা। সে সময় যে মোটরসাইকেলটি ব্যবহৃত হয়েছিল অভিযানকালে সেটি উদ্ধার করা হয়েছে।

এছাড়া বেশ কিছু অস্ত্র ও ধারালো ছুরি উদ্ধার করা হয়েছে। কামরাঙ্গীরচর থেকে আটক ওই তিন সদস্যকে নিয়ে অপারেশন চলছে বলেও জানান তিনি। তবে তাৎক্ষণিকভাবে তাদের নাম পরিচয় নিশ্চিত করতে পারেননি এ গোয়েন্দা কর্মকর্তা।

ঢাকা মেডিকেল ক্যাম্প পুলিশের ইনচার্জ মোজাম্মেল হক চিকিৎসকের বরাত দিয়ে বলেন, হিরন ও আব্দুল্লাহ নামে দুই জনের মৃতদেহ এখানে আনা হয়েছে।

মতামত