টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

সবার আগে চিটাগাং ভাইকিংসের বিদায়

চট্টগ্রাম, ০৮ ডিসেম্বর (সিটিজি টাইমস):  শেষ রক্ষাও হলো না চিটাগাং ভাইকিংসের। ঢাকা ডাইনামাইটসকে ১২১ রানে বেধে ফেলার পর চিটাগাংয়ের সমর্থকরা মনে করেছিল, এবার সম্ভবত শেষ চারের আশা টিকিয়ে রাখতে পারবে তামিম ইকবালরা। কিন্তু ব্যাটসম্যানদের চরম ব্যাটিং ব্যার্থতার কারণে ৪৫ রানে হেরে টুর্নামেন্ট থেকেই ছিটকে গেলো চট্টগ্রামের ফ্রাঞ্চাইজিটি।

এ নিয়ে মোট ৯ ম্যাচ খেলে ফেলেছে চিটাগাং ভাইকিংস। ৯ ম্যাচের মধ্যে তাদের জয় মাত্র দুটিতে। পয়েন্ট ৪। আর বাকি এক ম্যাচ। এই ম্যাচে জিতলেও কোন লাভ হবে না চিটাগাংয়ের। কারণ, চতুর্থ স্থানে থাকা ঢাকা ডাইনামাইটসকে ছুঁতে হলে অন্তত আরও চার পয়েন্ট প্রয়োজন তাদের।

অথচ, মোহাম্মদ আমির, তিলকারত্নে দিলশান, উমর আকমল, তামিম ইকবালের মত খেলোয়াড় ছিল চিটাগাংয়ের দলটিতে। বিপিএলে শুরুতে যেভাবে রানের বন্যা বইয়ে দিতে শুরু করেছিল, তাতে করে তাদেরকেই সবাই অন্যতম ফেভারিট হিসেব করে রেখেছিল; কিন্তু সেই দলটিই কি না সবার আগে বিদায় নিশ্চিত করলো বিপিএল থেকে।

আজ (মঙ্গলবার) চিটাগাংকে হারানোর পর ৮ ম্যাচ শেষে ঢাকার পয়েন্ট দাঁড়াল ৮। চতুর্থস্থানটা মোটামুটি নিশ্চিতই হয়ে গেছে তাদের। তবে, এখনও ‘কিন্তু’ রয়ে গেছে। কারণ, ৪ পয়েন্ট নিয়ে পঞ্চম স্থানে থাকা সিলেট সুপার স্টারস যদি শেষ দুই ম্যাচে বড় ব্যবধানে জয় পায় এবং ঢাকা যদি হেরে যায়, তাতে বরং ঢাকারই বাদ পড়ার সম্ভাবনা বেশি। সে ক্ষেত্রে চতুর্থ দল হিসেবে শেষ চারে উঠে যাবে সিলেট।

কিন্তু ঢাকা যদি একটি ম্যাচও জিতে যায়, তাহলে সিলেটের বাকি দুই ম্যাচ জিতলেও কোন লাভ হবে না। কারণ, চিটাগাং ভাইকিংস যে কারণে বাদ পড়ে যাচ্ছে, ঠিক একই কারণে বাদ পড়বে সিলেটও।

গত সোমবার বরিশাল বুলসে হারিয়ে বিপিএলে সবার আগে শেষ চার নিশ্চিত করেছে মাশরাফি বিন মর্তুজার কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। একই ঢাকাকে হারিয়ে শেষ চার নিশ্চিত করে ফেলেছে সাকিব আল হাসানের রংপুর রাইডার্সও। ওই ম্যাচে ঢাকা হেরে যাওয়ার ফলে তৃতীয় দল হিসেবে শেষ চার নিশ্চিত হয়ে গেছে বরিশাল বুলসেরও।

লড়াই ছিল চতুর্থস্থানের। এই একটি জায়গার জন্য মুখোমুখি ঢাকা-চিটাগাং এবং সিলেট। চিটাগাং হারিয়ে টুর্নামেন্ট থেকেই বের করে দিয়েছে ঢাকা। এবার বাকি থাকলো দুই দল ঢাকা এবং সিলেট। দেখা যাক শেষ পর্যন্ত কী হয়! তবে, সম্ভাবনাটা বেশি ঢাকারই।

মতামত