টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

বৈঠক ফলপ্রসূ, শিগগিরই খুলে দেয়া হবে ফেসবুক: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

চট্টগ্রাম, ০৬ ডিসেম্বর (সিটিজি টাইমস):: : ঢাকায় সফররত সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলোচনা ফলপ্রসূ হয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।

তিনি বলেন, ‘আলোচনা ফলপ্রসূ হয়েছে। আরেকটু চিন্তা-ভাবনার পরে শিগগিরই ফেসবুক খুলে দেওয়া হবে।’

রবিবার সকালে সচিবালয়ে নিজ মন্ত্রণালয়ে ফেসবুক কর্মকর্তাদের সঙ্গে এক বৈঠক শেষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।

বৈঠকে মন্ত্রীরা বাংলাদেশের জাতীয় নিরাপত্তাসংক্রান্ত বিষয়গুলো ফেসবুক কর্তৃপক্ষের কাছে তুলে ধরেন। জবাবে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছে বলে জানান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

তিনি বলেন, ‘বৈঠকে আমরা ফেসবুক কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আমাদের দেশের নিরাপত্তাসংক্রান্ত কিছু বিষয় তুলে ধরেছি, যেগুলো আমাদের কাছে হুমকিস্বরূপ মনে হয়েছে। আমরা তাদের বিষয়গুলো বোঝাতে সক্ষম হয়েছি। তারা বিষয়গুলো নিয়ে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছেন।’

আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘আমি বলব, আলোচনা ফলপ্রসূ হয়েছে। ফেসবুক কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যে আলোচনা হয়েছে, তা পর্যালোচনায় আমরা নিজেরা বসব। তারপরই একটু চিন্তা-ভাবনা করে ফেসবুক খুলে দেওয়ার ব্যাপারে ইতিবাচক সিদ্ধান্ত নেব।’

এই বৈঠকে বাংলাদেশ সরকারের পক্ষে ডাক ও টেলিযোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা উপদেষ্টা মেজর জেনারেল (অব.) তারিক আহমেদ সিদ্দিকী, পুলিশ মহাপরিদর্শক শহীদুল হক, র্যা বের অতিরিক্ত মহাপরিচালক জিয়াউল আহসান, পুলিশের বিশেষ শাখার (এসবি) অতিরিক্ত মহাপরিদর্শক জাবেদ পাটোয়ারি, বিটিআরসিসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীরা কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

আর ফেসবুকের পক্ষে তাদের এশিয়া প্যাসিফিক অঞ্চলের পলিসি ম্যানেজার দিপালী লিবার হেন এবং রাজনৈতিক ও আইন উপদেষ্টা বিক্রম লাং বৈঠকে অংশ নেন। সকাল ১০টা থেকে প্রায় দুই ঘণ্টা এই বৈঠক চলে।

একাত্তরের মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় বিএনপি-জামায়াতে ইসলামীর শীর্ষস্থানীয় দুই নেতার ফাঁসির রায় ঘিরে গত ১৮ নভেম্বর সরকার ফেসবুক, ফেসবুক মেসেঞ্জার, ভাইবার এবং হোয়াটসঅ্যাপ সেবা বন্ধ করে দেয়।

সরকারের পক্ষ থেকে দাবি করা হচ্ছে, নাগরিকদের নিরাপত্তার স্বার্থেই ইন্টারনেটভিত্তিক এসব সেবা বন্ধ রাখা হয়েছে। এখনো এসব সেবা বন্ধ রয়েছে। তবে বিকল্প পথে অনেকেই ব্যবহার করছেন।

এমন প্রেক্ষপটে আলোচনার জন্য ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগ ফেসবুককে চিঠি লেখে। তাতেই সাড়া দিতে গতকাল শনিবার রাতে ঢাকা এসেছেন ফেসবুকের দুই কর্মকর্তা।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত