টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

তুরস্কে বোমা বিস্ফোরণে নিহত বেড়ে ৯৫

worldচট্টগ্রাম, ১১ অক্টোবর (সিটিজি টাইমস): তুরস্কের সরকার বলছে, আঙ্কারায় সন্দেহভাজন আত্মঘাতী বোমা হামলায় এখন পর্যন্ত নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে অন্তত ৯৫ জন।

আর ২০০’র বেশি মানুষ ভয়াবহ ওই হামলায় আহত হয়েছেন। তুরস্কের প্রধানমন্ত্রী তিন দিনের রাষ্ট্রীয় শোক ঘোষণা করেছেন।

এই হামলার হতাহতরা বেশিরভাগই কুর্দি সমর্থিত এইচডিপি পার্টির সমর্থক, তারা এই হামলার জন্য সরকারকেই দায়ী করছে।

বিস্ফোরণ দুটি ঘটে শহরের কাছে সেন্ট্রাল রেল স্টেশনের কাছে। বামদলগুলোর আয়োজনে সভায় যখন মানুষজন জড়ো হচ্ছিল ঠিক তখনি এই জোড়া বিস্ফোরণ হয়।

বলা হচ্ছে, তুরস্কে এই ধরনের ভয়াবহ হামলা এর আগে হয়নি। প্রধানমন্ত্রী আহমেদ দাবুতোগলু দেশটিতে তিন দিনের রাষ্ট্রীয় শোক ঘোষণা করেছেন।

তিনি বলেছেন, এই হামলা দুইজন আত্মঘাতী হামলাকারী ঘটিয়েছেন, সেটার প্রমাণ তাদের রয়েছে।

প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েব এরদোগান বলেছেন, দেশটির পার্লামেন্টারি নির্বাচনের তিন সপ্তাহ আগে এই হামলা বলে দেয় এটা একটা সন্ত্রাসী কার্যক্রম।

তিনি তুর্কমেনিস্তানে তার নির্ধারিত সফর বাতিল করেছেন।

তুরস্কের সরকার এবং পিকেকে গ্রুপের মধ্যে যে সংঘর্ষ হচ্ছে, সেটা সমাপ্তির দাবি জানিয়ে বামদলগুলো ওই সভার আয়োজন করে।

স্থানীয় সময় দুপুর ১২টায় শুরু হওয়ার কথা ছিল কিন্তু সকাল ১০টার দিক যখন মানুষজন সভাস্থলে আসতে শুরু করে তখন বিস্ফোরণ দুটি হয়।

কুর্দি সমর্থিত এইচডিপি পার্টি ছিল ওই সভায় অংশ নেওয়া দলগুলোর মধ্যে একটি। তারা একটি বিবৃতিতে জানিয়েছে, তারা বিশ্বাস করে দলটির সদস্যরাই ওই হামলার লক্ষ্যবস্তু ছিল।

হামলার জন্য দলটি সরকারকে দায়ী করছে এবং আসন্ন নির্বাচন সম্পর্কিত সব সভা বাতিল করেছে।

মধ্যপ্রাচ্যে পশ্চিমাদের ঘনিষ্ঠ বন্ধু এই তুরস্ক রাষ্ট্রটি রাজনৈতিক অস্থিরতা, অর্থনীতি, পিকেকের সঙ্গে সংঘর্ষ, ইসলামিক স্টেটের হুমকি এবং ২০ লাখ শরণার্থী সমস্যা নিয়ে হিমশিম খাচ্ছে।

এর মধ্যে আঙ্কারাতে এই হামলা সংকেত দিচ্ছে তুরস্ককে একটা অন্ধকার সময় এখন মোকাবেলা করতে হচ্ছে।

সূত্র: বিবিসি

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত