টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

মা ও শিশুর সুস্বাস্থ্য রক্ষায় ব্রেস্টফিডিং রুম ও পুষ্টি বিজ্ঞান মেলা আয়োজন নেসলের

IMGচট্টগ্রাম, ০৬ অক্টোবর (সিটিজি টাইমস): শিশুর সুনিশ্চিত ভবিষ্যতের ওপরেই নির্ভর করে একটি দেশের সম্ভাবনা। শিশুর সেই ভবিষ্যৎ সুনিশ্চিতকরণে মা ও শিশুর সুস্বাস্থ্য বজায় রাখা খুবই জরুরি। এদেশে মা ও শিশুর সে সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করতেই কাজ করছে নেসলে বাংলাদেশ লিমিটেড। সঠিক সময়ে শিশুকে মায়ের দুধ খাওয়ানোর মাধ্যমে মা ও শিশুর সুস্বাস্থ্য নিশ্চিত করতে নেসলে বাংলাদেশ দেশজুড়ে ১ হাজার ব্রেস্টফিডিং রুম স্থাপনের উদ্যোগ নেয়ার পাশাপাশি মা ও শিশুর সুস্বাস্থ্য এবং শিশুর ভবিষ্যৎ বিকাশে দেশজুড়ে আয়োজন করছে পুষ্টি বিজ্ঞান মেলা।

এ উদ্দেশ্যে আজ দুপুর ১২টায় সাভারের দীপ ক্লিনিক অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে ব্রেস্টফিডিং রুমের উদ্বোধন করে নেসলে । ব্রেস্টফিডিং রুমের উদ্বোধন করেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সাবেক উপদেষ্টা অধ্যাপক সৈয়দ মোদাচ্ছের আলী ও ন্থানীয় সংসদ সদস্য ডা. এনামুর রহমান, নেস্লে নিউট্রিশনের রিজিওনাল বিজনেস হেড বিনু জ্যাকব ও নেসলের অন্যান্য কর্মকর্তাগণ অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। ওই একই দিন সকাল ৯টায় সাভার গলফ ক্লাবে পুষ্টি বিজ্ঞান মেলার আয়োজন করে নেসলে ।

নেস্লে এরই মধ্যে সারা দেশজুড়ে ৬৫টি ব্রেস্টফিডিং রুম স্থাপন করেছে। এর মধ্যে রয়েছে ঢাকা ন্যাশনাল মেডিকেল হাসপাতাল, রাজারবাগ সেন্ট্রাল পুলিশ হাসপাতাল, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল, জেমসিন রেড ক্রিসেন্ট ম্যাটার্নিটি হাসপাতাল, মাদারীপুর সদর হাসপাতাল, ভোলা সদর হাসপাতাল, টাঙ্গাইল মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল এবং ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়ার সদর হাসপাতাল ও খ্রিশ্চিয়ান মিশন হাসপাতাল।

শিশু মাতৃগর্ভে আসার প্রথম দিন থেকে পরবর্তী ১ হাজার দিন মা ও শিশুর সুস্বান্থ্য এবং শিশুর ভবিষ্যৎ বিকাশের জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বাংলাদেশের নার্সদের মধ্যে তদ্সম্পর্কিত জ্ঞান বৃদ্ধি ও প্রশিক্ষণের জন্যই নেস্লের পুষ্টি বিজ্ঞান মেলার আয়োজন। সম্প্রতি ঢাকা, চট্টগ্রাম, রংপুর, ফরিদপুর, বরিশাল, খুলনা, যশোর ও সিলেটে এ মেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ পুষ্টি বিজ্ঞান মেলায় সারাদেশ থেকে প্রায় ৩ হাজার নার্সকে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়।

নেস্লের এ উদ্যোগগুলো ইতিমধ্যেই ব্যাপকভাবে প্রসংশিত হয়েছে। ‘টুগেদার, নার্চারিং এ হেলদিয়ার জেনারেশন’- এ লক্ষ্যেই কাজ করে যাচ্ছে নেসলে । আর এই সুস্থ প্রজন্ম গঠনে মায়ের দুধের কোনো বিকল্প নেই। শিশুর ছয় মাস বয়স পর্যন্ত মায়ের দুধই শিশুকে পর্যাপ্ত পুষ্টি সরবরাহ করে।-প্রেস বিজ্ঞপ্তি

মতামত