টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

দারুণ জয়ে বিদায় নিলেন ক্লার্ক

clarke-looking-back-to-the-field-innerচট্টগ্রাম, ২৩ আগস্ট (সিটিজি টাইমস) : ওভাল টেস্টে ইনিংস ও ৪৬ রানে জিতেছে অস্ট্রেলিয়া। অ্যাশেজ হারের কষ্ট থাকলেও বিজয়ের আনন্দ নিয়েই আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার শেষ করলেন মাইকেল ক্লার্ক। দারুণ জয়ে শেষ হলো অস্ট্রেলিয়ায়ার মাইকেল ক্লার্ক- যুগ। আগামীকাল থেকেই মাইকেল ক্লার্ক মানে অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অধিনায়ক!

ওভালে টেস্ট বাঁচাতে অসাধ্যই সাধণ করতে হতো ইংলিশদের। ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় সেটা হয়নি। প্রথম ইনিংসে ১৪৯ রান করার পর দ্বিতীয় ইনিংসে ইংলিশরা গুটিয়ে গেছে ২৮৬ রানে। দুই ইনিংস মিলিয়ে অস্ট্রেলিয়ার প্রথম ইনিংসের রানই করতে পারেনি অ্যাশেজ- বিজয়ীরা। শেষ ম্যাচে এসে মনেই হয়নি এই দলটিই জিতেছে এবারের অ্যাশেজ।

ওভালের প্রথম ইনিংসে ৪৮১ রান করে অস্ট্রেলিয়া। ১৪৩ রানের দুর্দান্ত একটি ইনিংস খেলেন স্টিভ স্মিথ। এ ছাড়া ৮৫ রান করেন ডেভিড ওয়ার্নার। সত্তরোর্ধ্ব ইনিংস খেলেন অ্যাডাম ভোগেস। হাফ সেঞ্চুরি করেন মিচেল স্টার্কও। ইংলিশদের হয়ে তিনটি করে উইকেট নেন বেন স্টোকস, স্টিভেন ফিন ও মঈন আলি।

৪৮১ রান সামনে রেখে ব্যাটিংয়ে নেমে প্রথম ইনিংসে মাত্র ১৪৯ রানে গুটিয়ে যায় ইংলিশ ব্যাটিং লাইন। মিচেল জনসন ও মিচেল মার্শের দাপুটে পেস বোলিংয়ের সামনে দাঁড়াতেই পারেননি অ্যালিস্টার কুক ও ইয়ান বেলরা। নাথান লিয়ন ও পিটার সিডল নেন দুটি করে উইকেট। ফলোঅনে পড়ে আবার ব্যাটিংয়ে নামে ইংল্যান্ড এবং আবার ভেঙে পড়ে তারা।

ইংল্যান্ডের দ্বিতীয় ইনিংস থামে ২৮৬ রানে। প্রথম ইনিংসের চেয়ে একটু ভালো খেললেও তাতে বড় পরাজয় থেকে বাঁচতে পারেনি ইংল্যান্ড। শেষ ইনিংসে সর্বোচ্চ ৮৫ রান করেন অ্যালিস্টার কুক। অস্ট্রেলিয়ার হয়ে চারটি উইকেট নেন পিটার সিডল। দুটি করে উইকেট নেন নাথান লিয়ন ও পিটার সিডল। শেষ পর্যন্ত ৩-২ ব্যবধানে সিরিজ জিতে ইংল্যান্ড। বিশ্বকাপে বাংলাদেশের কাছে হেরে ছিটকে পড়ে তারা। অ্যাশেজ জয়ের মাধ্যমে সেই ক্ষতে একটু হলেও প্রলেপ পড়লো তাদে। অস্ট্রেলিয়ার পরবর্তী সিরিজ বাংলাদেশের বিপক্ষে। আগামী মাসের শেষ দিকে দুটি টেস্ট ম্যাচ খেলতে বাংলাদেশে আসবে তারা। এই সিরিজে অসিদের নেতৃত্ব দিবেন স্টিভ স্মিথ। ক্লার্কের বিদায়ের পর তিনিই এখন অস্ট্রেলিয়ার নতুন দিনের কাণ্ডারী।

মতামত