টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

নতুন বিপদে পড়তে যাচ্ছেন আশরাফুল?

aচট্টগ্রাম, ০৩ আগস্ট (সিটিজি টাইমস)::   খুব সম্ভবত আবার নতুন বিপদে পড়তে যাচ্ছেন ম্যাচ ফিক্সিংয়ের কারণে নিষিদ্ধ থাকা মোহাম্মদ আশরাফুল। বর্তমানে তিনি যুক্তরাষ্ট্রের ঘরোয়া ক্রিকেট ডাইভারসিটি ক্রিকেট লিগে খেলছেন। টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটের লিগে বাংলাদেশ টাইগার্স নামে খেলছে একটি দল। সেই দলেই আছেন আশরাফুল। অথচ কোনো ধরনের ‘আনুষ্ঠানিক’ ক্রিকেটে তার খেলা নিষেধ। এ ঘটনায় নতুন করে বিপদে পড়তে পারেন আশরাফুল।

আশরাফুলকে ক্রিকেটে নিষিদ্ধ করেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড গঠিত ট্রাইব্যুনাল। নিষিদ্ধের রায় অনুযায়ী বিশ্বের কোথাও খেলতে পারবেন না তিনি। আশরাফুল এখন যে লিগে খেলছেন সেটাকে অবশ্য ‘আনুষ্ঠানিক’ ক্রিকেট মনে করছে না বিসিবি। রোববার সংবাদ মাধ্যমকে বিসিবি প্রধান নির্বাহী নিজামুদ্দিন চৌধুরী তা-ই বলেছেন।

সে হিসেবে আশরাফুলের এই লিগে খেলা নিষেধাজ্ঞার ভিতরে পড়ে না। কিন্তু পাকিস্তানের মোহাম্মদ আমিরের ক্ষেত্রে একই ধরনের ঘটনায় চটেছিলো আইসিসি। পরে ক্ষমা চেয়ে পার পেয়েছেন আমির। একই রকম কিছু ঘটতে পারে আশরাফুলের ক্ষেত্রেও।

সমস্যা তৈরি হয়েছে আরো একটি। আশরাফুল তার সাথে নিয়ে গেছেন বিসিবির চুক্তিতে থাকা দুই ক্রিকেটার ইলিয়াস সানি ও নাদিফ চৌধুরীকেও। কেন্দ্রীয় চুক্তিতে না থাকলেও এ দুজন ঘরোয়া ক্রিকেটে বিসিবির নিজস্ব চুক্তিতে আছেন।

এই পরিস্থিতিতে ঠিক করা হবে তা নিয়ে বিসিবি আপাতত দ্বিধাগ্রস্ত। প্রধান নির্বাহী কেবল জানিয়েছেন, বিষয়টি নিয়ে বিসিবি চিন্তা ভাবনা করছে এবং খেলোয়াড়দের উপর নজরও রাখছে।

আশরাফুলের শাস্তির মেয়াদ শেষ হওয়ার কথা আগামী বছরের আগস্টে। এর আগে তার আট বছরের শাস্তি থেকে তিন বছর কমানো হয়। একই সাথে জানানো হয় বোর্ড ও আইসিসির নিয়ম মনে চললে আরো দুই বছর কম করা হবে তার শাস্তি। সেই হিসেবেই আগামী বছর আগস্টে ফেরার সুযোগ তৈরি হতে পারে আশরাফুলের সামনে।

এর মধ্যে নতুন বিতর্কে জড়িয়ে হয়তো বড় বিপদেই পড়তে যাচ্ছেন তিনি। শেষ পর্যন্ত বিসিবি যদি এটিকে অপরাধ মনে করে, তবে হয়তো তার দুই বছর শাস্তি আর কমানো হবে না। সে ক্ষেত্রে ক্রিকেট ক্যারিয়ার চিরতরে শেষ হয়ে যেতে পরে টেস্ট অভিষেকে সবচেয়ে কম বয়সে সেঞ্চুরির বিশ্বরেকর্ড গড়া এই ক্রিকেটারের।

মতামত