টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

সাকার পক্ষে যুক্তি উপস্থাপন শেষ আজ

saka-bnpচট্টগ্রাম, ০৭ জুলাই (সিটিজি টাইমস): মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর (সাকা) ফাঁসির রায়ের বিরুদ্ধে আপিলের ওপর শুনানিতে যুক্তিতর্ক আজ মঙ্গলবারের মধ্যে শেষ করতে আসামিপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

সোমবার সালাউদ্দিন কাদেরের আপিল শুনানি মুলতবি করে আদালত এ আদেশ দেন। এরআগে গত বুধবার রাষ্ট্রপক্ষের শুনানি শেষ হয়। আজ আসামি পক্ষের শুনানি শেষ হওয়ার পরই আপিলের চূড়ান্ত রায় দেয়া হবে।

প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহার নেতৃত্বাধীন চার বিচারপতির আপিল বেঞ্চে এই শুনানি হচ্ছে। বেঞ্চের অপর সদস্যরা হলেন- বিচারপতি নাজমুন আরা সুলতানা, বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন ও বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী।

এর আগে মানবতাবিরোধী অপরাধে যতজনের বিরুদ্ধে আপিলের রায় হয়েছে দুই জন বাদে বাকি সবার ক্ষেত্রে ট্রাইব্যুনালের রায় বহাল ছিল।

কাদের মোল্লাকে ট্রাইব্যুনালে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হলেও আপিলে ফাঁসি দেয়া হয় এবং সাঈদীকে ট্রাইব্যুনালে ফাঁসি দেয়া হলেও আপিলে তাকে আমৃত্যু কারাদণ্ড দেয়া হয়।

এর আগে ৮ কার্যদিবস আদালতে আপিলের পেপারবুক উপস্থাপন করেন সাকা চৌধুরীর আইনজীবী অ্যাডভোকেট এস এস শাহজাহান।

গত ১৬ জুন সাকা চৌধুরীর আপিল মামলার শুনানি শুরু হয়। প্রথমে ট্রাইব্যুনালের রায়, সাক্ষীদের সাক্ষ্য এবং রায় সংক্রান্ত নথিপত্র (পেপারবুক) উপস্থাপন করেন আসামিপক্ষ।

২০১৩ সালের ১ অক্টোবর বিএনপির সাবেক সংসদ সদস্য সাকা চৌধুরীকে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে মৃত্যুদণ্ড দেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১। একই বছরের ২৯ অক্টোবর খালাস চেয়ে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগে আপিল করেন তিনি। তবে সর্বোচ্চ সাজা হওয়ায় আপিল করেননি রাষ্ট্রপক্ষ।

ট্রাইব্যুনালে সাকা চৌধুরীর বিরুদ্ধে আনা মানবতাবিরোধী অপরাধের মোট ২৩টি অভিযোগের মধ্যে ১৭টির পক্ষে সাক্ষী হাজির করে রাষ্ট্রপক্ষ। এর মধ্যে মোট নয়টি অভিযোগে তাকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছে ট্রাইব্যুনালের রায়ে। বাকিগুলোতে তাকে খালাস দেওয়া হয়।

মতামত