টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

দক্ষিণ রাউজানে আইটি ভিলেজ প্রতিষ্ঠার প্রক্রিয়া চলছে: ফজলে করিম চৌধুরী এমপি

এস.এম. ইউসুফ উদ্দিন
রাউজান প্রতিনিধি 

Raozan-Iftar-Mahfil-picচট্টগ্রাম, ০৩ জুলাই (সিটিজি টাইমস): ১৯’শ কোটি টাকা ব্যয়ে এক’শ ১৪ কানি জমিতে আইটি ভ্যালেজ প্রতিষ্ঠার প্রক্রিয়া চলছে। চুয়েট পর্যন্ত রেল লাইন হবে। রাউজানের মানুষের চাওয়া পাওয়া অনেকাংশে জন্য নিশ্চিত করতে সর্বোচ্চ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। এখন ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবে। রাউজানবাসী গর্বের সাথে পরিচয় দিতে পারবে আমরা দেশের একটি আধুনিক সমৃদ্ধশালী উপজেলার বাসিন্দা। ৩ জুলাই দক্ষিণ রাউজান সাতটি ইউনিয়নের আওয়ামীলীগ ও সহযোগি সংগঠনের উদ্যোগে আয়োজিত এক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে রাউজানের সাংসদ এবিএম ফজলে করিম চৌধুরী উপরোক্ত কথা বলেন।

নোয়াপাড়া পথেরহাটের কিং অব নোয়াপাড়া কমিউনিটি সেন্টারে আয়োজিত এই সমাবেশ ও ইফতার মাহফিলে সভাপতিত্ব করেন নোয়াপাড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব দিদারুল আলম।

উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জাফর আহমদ ও মঞ্জুর হোসেন এর পরিচালনায় এই সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পদক আবুল কালাম আজাদ, রাউজান উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি সাবেক পৌর মেয়র শফিকুল ইসলাম চৌধুরী বেবী, আফতার ফেরদৌস, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আলহাজ্ব নুর মোহাম্মদ, পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-২ এর জিএম আবু বক্কর ছিদিকী। বক্তব্য রাখেন সাবেক চেয়ারম্যান মনিুরুল ইসলাম, চেয়ারম্যান আব্বাস উদ্দিন আহমদ, ল্য়ান সাহবুদ্দিন আরিফ, ভূপেষ বড়–য়া, মোজাহেদুল ইসলাম লিংকন, রোকন উদ্দিন।

অন্যান্যদের মাঝে উপস্থিত ছিলেন ব্যাংকার আলহাজ্ব শামশুল আলম, আলহাজ্ব আবদুস ছালাম, উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা নুরুল আবছার, এডভোকেট দীপক দত্ত, জাহাঙ্গীর সিকদার, দুলাল বড়ুয়া, বাবুল মিয়া মেম্বার, আবুল বশর বাবুল, তফসির আহমদ, সৈয়দ মোজাফ্ফর হোসেন, শান্তিপদ বৈদ্য, জসিম উদ্দিন চৌধুরী, আলহাজ্ব আজম খান, মোশাররফ হোসেন ছোটন, দোস্ত মোহাম্মদ, দক্ষিণ রাউজান ছাত্রলীগের সভাপতি সৈয়দ আবদুল জব্বার সোহেল, সাধারণ সম্প্দাক জাহাঙ্গীর আলম, এস এম জাহাঙ্গীর সুমন, মহিউদ্দিন ইমন, সৈয়দ আবু জাফর মো. রাশেদ, সোলেমান বাদশা, এস.এম. হাফিজুর রহমান, যুবলীগ নেতা সেকান্দর হোসেন, নুরুল ইসলাম, লিটন মেম্বার, সাফুদ্দিন সাইফ, সেলিম উদ্দিন, সৈয়দ মুহাম্মদ মেজবাহ উদ্দিন প্রমূখ। ইফতার মহাফিলে মুনাজাত করেন মাওলানা জিল্লুর রহমান ফরুকী।

মতামত