টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

কোকেন আমদানি: খানজাহান আলীর ব্যবস্থাপক আটক

চট্টগ্রাম, ২৮ জুন (সিটিজি টাইমস):: চট্টগ্রাম বন্দরে সূর্যমুখী তেলের নামে কোকেন আমদানির অভিযোগে খানজাহান আলী লিমিটেডের ব্যবস্থাপক গোলাম মোস্তফাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

রবিবার বিকালের দিকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

এর আগে শনিবার চট্টগ্রাম বন্দর দিয়ে আমদানি করা সূর্যমুখী তেলের নমুনা পুনঃপরীক্ষায় একটি ড্রামে ১৮৫ কেজি তরল কোকেনের অস্তিত্ব পাওয়া যায় বলে জানায় শুল্ক গোয়েন্দা সংস্থা।

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) অতিরিক্ত কমিশনার (গোয়েন্দা) তানভির আরাফাত সাংবাদিকদের জানান, ‘আমদানি করা একটি ড্রামের তেলের নমুনা পুনঃপরীক্ষা করে তরল কোকেনের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে। ওই ড্রামে ১৮৫ কেজি তরল কোকেনের অস্তিত্বের কথা উল্লেখ করা হয়।

তিনি আরও জানান, এ পর্যন্ত ১৮৫ কেজি তরল কোকেনের নিশ্চিত রিপোর্ট এসেছে। যার আনুমানিক মূল্য প্রায় ১১ হাজার একশ’ কোটি টাকা।

প্রসঙ্গত, ভোজ্য তেলের ঘোষণা দিয়ে চট্টগ্রামের খাতুনগঞ্জের একটি প্রতিষ্ঠান বলিভিয়া থেকে ভোজ্য তেলের কনটেইনারটি আমদানি করে। কনটেইনারের ১০৭টি ড্রামে দুই হাজার ১৪০ কেজি ভোজ্য তেল আমদানির ঘোষণা রয়েছে। আর এতে আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান হিসেবে নাম রয়েছে ‘খান জাহান আলী লিমিটেডের’।

এসব ড্রামে তরল কোকেন রয়েছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে গত ৬ জুন বন্দরের চিটাগং কনটেইনার টার্মিনালের (সিসিটি) তিন নম্বর ইয়ার্ডে জব্দ করা হয় কনটেইনারের এসব ড্রাম।

পরে ৮ জুন কনটেইনারগুলো খোলা হলেও স্থানীয়ভাবে ড্রামের তেল পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হলেও এতে কোকেনের কোনো প্রমাণ মেলেনি। কিন্তু আইনশৃঙ্খলা বাহিনী এ পরীক্ষায় সন্তুষ্ট ছিল না। ফলে একটি ড্রামের তেলের নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকায় পাঠানো হয় পুনঃপরীক্ষার জন্য।

ঢাকায় বাংলাদেশ বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষণা পরিষদ (বিসিএসআইআর) ও বাংলাদেশ ড্রাগ টেস্টিং ল্যাবরেটরিতে তেলের নমুনা দুবার পরীক্ষা করে এ ফলাফল পাওয়া যায় বলে জানান শুল্ক গোয়েন্দা সংস্থার কর্মকর্তারা।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত