টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

নতুন বেতন কাঠামো ১ জুলাই থেকে বাস্তবায়ন

Budgetচট্টগ্রাম, ০৪ জুন (সিটিজি টাইমস) ::  সরকারি চাকুরিজীবীদের জন্য ঘোষিত নতুন বেতন কাঠামো চলতি বছরের ১ জুলাই থেকে বাস্তবায়িত হবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।

তিনি বৃহস্পতিবার সংসদের বাজেট বক্তৃতায় একথা বলেন।

নতুন বেতন কাঠামো প্রণয়ন সম্পর্কে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘প্রজাতন্ত্রের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতন-ভাতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে আমরা বেতন ও চাকরি কমিশন, ২০১৩ গঠন করেছিলাম। আমি এই মহান সংসদে আগামী ১ জুলাই ২০১৫ তারিখ থেকে নতুন বেতন স্কেল বাস্তবায়ন শুরুর ঘোষণা দিচ্ছি। এ ক্ষেত্রে গৃহীত পদক্ষেপসমূহ পর্যায়ক্রমে বাস্তবায়ন করব।’

তিনি শুধু বেতন-ভাতাই নয়, বেতন কমিশনের সুপারিশের আলোকে সরকারি চাকরিজীবীদের কল্যাণার্থে তাদের নিজস্ব মালিকানায় তফসিলি ব্যাংকের আদলে ‘সমৃদ্ধি সোপান ব্যাংক’ নামে একটি বাণিজ্যিক ও উন্নয়ন ব্যাংক স্থাপনের উদ্যোগ গ্রহণের কথাও জানান।

অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘প্রাথমিকভাবে ৪০০ কোটি টাকা পরিশোধিত মূলধন দিয়ে ব্যাংকটির যাত্রা শুরুর চিন্তাভাবনা আছে। আর এ পরিশোধিত মূলধন বিদ্যমান চাকরিজীবী ও অবসরপ্রাপ্তগণকে প্রাইমারি শেয়ার প্রদান করে সংগ্রহ করা হবে।’

তবে এ বিষয়ে আরো চিন্তাভাবনার প্রয়োজন রয়েছে বলে সংসদকে জানান তিনি।

ব্যাংকিং খাতের সঞ্চয়ন, সুষ্ঠু নীতিমালা ও প্রবৃদ্ধির ধারা নির্ধারণ সম্পর্কে আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেন, ‘ব্যাংকিং খাতের প্রচলিত কার্যক্রম এবং এই খাতের সার্বিক অবস্থান মূল্যায়ন ও বিবেচনা করার জন্য একটি ব্যাংকিং কমিশন গঠনের চিন্তাভাবনা আমাদের রয়েছে।’

এছাড়া অবসরপ্রাপ্ত চাকরিজীবীদের পেনশন কার্যক্রম পরিচালনার জন্য নির্দিষ্ট ফান্ড গঠনের কথা জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী।

তিনি বলেন, ‘বর্তমানে দেশে পাঁচ লক্ষাধিক অবসরপ্রাপ্ত চাকরিজীবী পেনশন ভোগ করছেন। এ বিপুল সংখ্যক পেনশনভোগীর পেনশন কার্যক্রম পরিচালনার জন্য কোনো সুনির্দিষ্ট কর্তৃপক্ষ বা ফান্ড নেই, যা ভবিষ্যতে সরকারি ব্যয় ব্যবস্থাপনার ভারসাম্যে বিঘ্ন ঘটাতে পারে। তাই সরকারি চাকরিজীবীদের পেনশন ব্যবস্থাপনার জন্য একটি পেনশন তহবিল ও ‘পেনশন ফান্ড ম্যানেজমেন্ট কর্তৃপক্ষ’ প্রতিষ্ঠা করব।’

মুহিত বলেন, প্রাথমিকভাবে পেনশন ফান্ড ম্যানেজমেন্ট কর্তৃপক্ষকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ ফান্ড দেওয়া হবে। এ ফান্ড থেকে পেনশন প্রদানের পাশাপাশি বিভিন্ন খাতে বিনিয়োগের মাধ্যমে পেনশনভোগীদের জন্য কল্যাণমূলক কার্যক্রম গ্রহণ করা হবে।

মতামত