টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

চসিক নির্বাচন : তিন কাউন্সিলর প্রার্থীর মামলা

ccc-Copy1চট্টগ্রাম, ২৫ মে (সিটিজি টাইমস) :: চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনে পরাজিত তিন কাউন্সিলর সংক্ষুব্ধ হয়ে নির্বাচন কমিশন, নির্বাচনী দায়িত্বপালনকারী কর্মকর্তা, পুলিশসহ প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছেন।

মামলা দায়েরকারী তিন কাউন্সিলর প্রার্থী হলেন-১ নম্বর সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর প্রার্থী ফেরদৌসি বেগম মুন্নী, ৩৬ নম্বর গোসাইলডাঙ্গা ওয়ার্ডের জাহাঙ্গীর আলম ও ২২ নম্বর এনায়েত বাজার ওয়ার্ডের আব্দুল মালেক । তারা তিনজনই সদ্য সাবেক কাউন্সিলর ছিলেন। এদের মধ্যে প্রথম দু’জন আওয়ামী লীগ দলীয় এবং মালেক বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী ছিলেন।

সোমবার চসিক নির্বাচন সংক্রান্ত গঠিত নির্বাচনী ট্রাইব্যুনাল দ্বিতীয় যুগ্ম জেলা জজ বাহা উদ্দিনের আদালতে পৃথক এ তিনটি মামলা দায়ের করেন।

আদালত মামলাটি গ্রহণ করে নির্বাচনী সরঞ্জাম তলব করে পরবর্তী শুনানীর দিন ধার্য্য করেছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে বাদী পক্ষের আইনজীবি অ্যাডভোকেট পুর্নেন্দু বিকাশ চৌধুরী  বলেন, আদালত মামলা তিনটি আমলে নিয়ে নির্বাচনী সরঞ্জাম তলব করেছেন। একই সাথে আগামী শুনানীর আগে পূনাঙ্গা আদেশ দেবেন বলে জানিয়েছেন।’

সিটি নির্বাচন বিধিমালা অনুযায়ী, নির্বাচনের ফলাফল গেজেট আকারে প্রকাশের ৩০ দিনের মধ্যে ট্রাইব্যুনালে সংশ্লিষ্ট প্রার্থী বা ব্যক্তিকে মামলা করতে হবে। ট্রাইব্যুনাল মামলা হওয়ার ১৮০ দিনের মধ্যে অভিযোগ চূড়ান্তভাবে নিষ্পত্তি করবেন।

ওই প্রার্থী ট্রাইব্যুনালের রায়ে সন্তুষ্ট না হলে আপিল ট্রাইব্যুনালেও আবেদন করতে পারবেন। এক্ষেত্রে নির্বাচনী ট্রাইব্যুনালের দেয়া রায়ের ৩০ দিনের মধ্যে আপিল করতে হবে। আপিল ট্রাইব্যুনাল আপিল আবেদনের ১৮০ দিনের মধ্যে চূড়ান্তভাবে মামলা নিষ্পত্তি করবেন।

মতামত