টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

আনসারউল্লাহ নিষিদ্ধ হচ্ছে

anserচট্টগ্রাম, ২২ মে (সিটিজি টাইমস) : ইসলামি জঙ্গি সংগঠন আনসারউল্লাহ বাংলা টিমকে নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এই সংগঠনটির সঙ্গে আল কায়েদাসহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসী সংগঠনের সম্পর্ক আছে বলে সন্দেহ করে পুলিশ। আনসারউল্লাহ বাংলা টিমকে নিষিদ্ধ করার জন্য গত সপ্তাহেই পুলিশের পক্ষ থেকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে সুপারিশ পাঠানো হয়। খবর বিবিসি বাংলার।

স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান জানান, পুলিশের সুপারিশের ভিত্তিতে তারা আনসারউল্লাহ বাংলা টিমকে নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। এই লক্ষ্যে প্রশাসনিক ব্যবস্থা গ্রহণের প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে।

পুলিশ বলছে, সাম্প্রতিক মাসগুলোতে কয়েকজন ব্লগারকে হত্যার ঘটনার সঙ্গে এই সংগঠনটির সম্পৃক্ততার ব্যাপারে তাদের কাছে তথ্যপ্রমাণ রয়েছে। আর সেকারণেই এ সংগঠনকে নিষিদ্ধ করতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে প্রস্তাব পাঠানো হয়।

অনেক দিন ধরেই আনসারউল্লাহ বাংলা টিমের তৎপরতা নিয়ে গণমাধ্যমে খবর বেরুচ্ছে। তারপরও সরকার সংগঠনটিকে নিষিদ্ধ করতে এত দীর্ঘ সময় নিল কেন?

এ প্রশ্নের উত্তরে স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেন, পুলিশ সংগঠনটির প্রধানসহ প্রায় সবাইকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়। এ কারণে সরকারের ধারণা ছিল সংগঠনটিকে নির্মূল করা গেছে। কিন্তু এখন ফেসবুকে-ইন্টারনেটে সংগঠনটির নানা তৎপরতা দেখে সরকার এটিকে নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

পুলিশের ধারণা, আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের সদস্যরা ২০০৮ সাল পর্যন্ত জামিয়াতুল মুসলেমিন নামক একটি আন্তর্জাতিক জঙ্গি সংগঠনের হয়ে কাজ করত।

বাংলাদেশে ২০০৯ সাল থেকে আনসারুল্লাহ বাংলা টিম নামে দলটি নতুন করে সংগঠিত হয়। এরপর বিভিন্ন সময় গোপনে সদস্য সংগ্রহ এবং তাদের প্রশিক্ষণ দেবার কাজ চালিয়ে গেছে তারা।

বিভিন্ন সময় পুলিশের অভিযানে অস্ত্র, জঙ্গি প্রশিক্ষণে ব্যবহার করা সরঞ্জামাদি এবং বিভিন্ন ধরনের প্রকাশনাও উদ্ধার করেছে পুলিশ।

মতামত