টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

হত্যা মামলায় সালমান খানের পাঁচ বছর কারাদণ্ড

binoচট্টগ্রাম, ০৬ মে এপ্রিল (সিটিজি টাইমস):: এক পথচারীকে গাড়ি চাপা দিয়ে হত্যার দায়ে দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন বলিউড সুপারস্টার সালমান খান। এজন্য তাকে ৫ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছে মুম্বাইয়ের একটি আদালত।

আদালত বলেছে, সালমান মদ্যপ অবস্থায় নিজেই গাড়ি চালাচ্ছিলেন।

রায় ঘোষণা উপলক্ষে বুধবায় মুম্বাইয়ের সেশন আদালতে উপস্থিত হন সালমান।

রায় ঘোষণাকালে মুম্বাইয়ের সেশন জজ ডিডব্লিউ দেশপান্ডে দাবাং খ্যাত সালমানের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘আপনি নিজেই গাড়ি চালাচ্ছিলেন।’

এ সময় তার ড্রাইভিং লাইসেন্সও ছিল না বলে মন্তব্য করেন বিচারক। তিনি বলেন যে সালমানের গাড়িচালক গাড়ি চালাচ্ছিলেন বলে প্রমাণ পাওয়া যায়নি।

বিচারক তার রায়ে বলেন, সালমানের বিরুদ্ধে যে সাতটি অভিযোগ উত্থাপন করা হয়েছিল তার সবগুলোই প্রমাণিত হয়েছে।

১৩ বছর আগে এক পথচারীকে গাড়ি চাপা দিয়ে হত্যার অভিযোগে এ রায় দেয়া হয়। ওই ঘটনায় আরো চারজন আহত হয়েছিলেন।

রায় ঘোষণা উপলক্ষে ৪৯ বছর বয়সী সালমান খান কাশ্মীর থেকে গতকাল মুম্বাইয়ে এসেছেন। সেখানে তিনি ‘বজরঙ্গী ভাইজান’ চলচ্চিত্রের শুটিংয়ে ব্যস্ত ছিলেন।

২০০২ সালের গাড়ি চাপা দিয়ে মানুষ হত্যার আলোচিত মামলার নাটকীয় মোড় আসে এপ্রিল মাসে।

সালমানের ড্রাইভার আশোক সিং প্রথমবারের মতো দাবি করেন, দুর্ঘটনার দিন সালমান নন, তিনিই গাড়ি চালাচ্ছিলেন।

আদালতে সরকারি কৌঁসুলীরা অভিযোগপত্র দেন যে ২০০২ সালের ২৮ সেপ্টেম্বর রাতে জুহুতে মদ ও ককটেলে বুঁদ হয়ে গাড়ি চালানোর সময় সালমান ফুটপাথে ঘুমন্ত লোকদের ওপর গাড়ি উঠিয়ে দেন। এরপর তিনি ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যান।

এ সময় ঘটনাস্থলেই নুরুলা নামের একজন মারা যান।

রায় ঘোষণাকালে আদালতে সালমানকে বিধ্বস্ত দেখাচ্ছিল। এ সময় ফুলহাতার সাদা শার্ট, নীল জিন্স প্যান্ট এবং কালো চশমা পরিহিত ছিলেন তিনি। আদালতে উপস্থিত ছিলেন সালমানের বোন আলভিরা এবং অর্পিতা। রায় শুনে কান্নায় ভেঙে পড়েন আলভিরা।

রায় ঘোষণার আগের দিন সালমানের বাড়িতে ভীড় জমান নায়ক শাহরুখ খানসহ বলিউড অভিনেতা-অভিনেত্রীরা এবং তার স্বজনরা।

বুধবার আদালতের উদ্দেশ্যে রওনা দেয়ার আগে বাবা-মায়ের সাথে আলিঙ্গন করেন তিনি। এরপর সাদা রঙের মার্সিডিজ বেঞ্জে চেপে বসেন সালমান।

এখন পর্যন্ত ১০০ এর বেশি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন সালমান খান। তিনি বলিউডের অন্যতম ব্যস্ত ও দামী অভিনেতা।

বর্তমানে তার হাতে রয়েছে সাতটি চলচ্চিত্র যাতে প্রায় ২০০ কোটি রুপি বিনিয়োগ করা হয়েছে। এর মধ্যে দুটি ছবির কাজ চলছে।

দশটি ব্র্যান্ডের মডেল তিনি।

সালমান খান অভিনীত কবির খান পরিচালিত ‘বাজরঙ্গী ভাইজান’ ও সুরুজ বারজাতিয়ার ‘প্রেম রতন ধন পায়ো’ শিরোনামে চলচ্চিত্র দুটি এ বছর মুক্তি পাবে।

সূত্র: এনডিটিভি

মতামত