টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

ডিজাইনার সাথে প্রেম, শিক্ষিকার সঙ্গে লিভ টুগেদার, অতঃপর কারাগারে

চট্টগ্রাম, ০৩ মে এপ্রিল (সিটিজি টাইমস):  চট্টগ্রামের এক ধনাঢ্য ব্যবসায়ীর ইন্টেরিয়র ডিজাইনার এক নারীর সঙ্গে প্রেম। একই সঙ্গে চট্টগ্রামের বিখ্যাত একটি ইংলিশ মিডিয়াম স্কুলের সুন্দরী শিক্ষিকার সঙ্গে লিভ টুগেদার।

অতঃপর পুলিশের হাতে নারী নির্যাতন মামলায় গ্রেফতার হয়ে কারাগারে যেতে হলো এই ব্যবসায়ীকে।

আলোচিত এই ব্যবসায়ীর নাম সাব্বির চৌধুরী। তিনি চান্দগাঁও থানার খাজা রোডের বিখ্যাত চৌধুরী-পরিবারের নুরুজ্জামান চৌধুরীর ছেলে। বসবাস করতেন নগরীর ধনাঢ্য ব্যবসায়ীদের আবাসিক এলাকা খুলশী হিলে।

পুলিশের হাতে গ্রেফতার হওয়ার আগে প্রেম, পরকীয়া আর লিভ-টুগেদারের জেরে মাসখানেক আগেই ১০ বছরের দাম্পত্য জীবনের ইতি ঘটে এই ধনাঢ্য ব্যবসায়ীর।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, ধনাঢ্য পরিবারের সন্তান সুদর্শন সাব্বির চৌধুরীর সঙ্গে ১০ বছর আগে বিয়ে হয় চট্টগ্রামের অন্য এক শিল্পপতির সুন্দরী কন্যা শায়লার। দাম্পত্য জীবনে তাদের সংসারে একটি কন্যাসন্তানের জন্ম হয়। তার বর্তমান বয়স ৮ বছর।

কিন্তু এর মধ্যেই সাব্বির জড়িয়ে পড়েন পরকীয়ার জালে। চট্টগ্রামের পরিচিত মুখ এক ইন্টেরিয়র ডিজাইনারের সঙ্গে পরকীয়াটি একসময় রূপ নেয় শরীরী সম্পর্কে। ঘটনাটি পরিবারে জানাজানি হলে স্ত্রীর সঙ্গে তার মনোমালিন্য সৃষ্টি হয়। একপর্যায়ে স্ত্রী বাবার বাড়ি চলে যান। সবশেষ, এক মাস আগে তাদের ছাড়াছাড়ি হয়ে যায়।

স্ত্রীর সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন হওয়ার পর সাব্বির আরো বেপরোয়া হয়ে ওঠেন। আগের ইন্টেরিয়র ডিজাইনারের সঙ্গে পরকীয়া-সম্পর্কের পাশাপাশি, চট্টগ্রামের খ্যাতনামা একটি ইংলিশ মিডিয়াম স্কুলের সুন্দরী এক শিক্ষিকার সঙ্গেও লিভ টুগেদার শুরু করেন তিনি। আর এটিই তার জন্যে কাল হয়ে দাঁড়ায়।

লিভ টুগেদারের বিষয়টি গত সপ্তাহে জেনে যান পরকীয়া-প্রেমিকা সেই ইন্টেরিয়র ডিজাইনার। দীর্ঘ ৪ বছরের পরকীয়া প্রেমের পরও তাকে বিয়ে না করে, অন্যজনের সঙ্গে লিভ টুগেদার করায় প্রতারণা ও নারী নির্যাতনের অভিযোগ এনে সরাসরি থানা-পুলিশের দ্বারস্থ হন ওই ইন্টেরিয়র ডিজাইনার।

গত বুধবার নগরীর চকবাজার থানায় বাদী হয়ে সাব্বিরের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন তিনি। এর পরিপ্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার রাতে নগরীর ও আর নিজাম রোডের ওই স্কুল-শিক্ষিকার বাসা থেকে ব্যবসায়ী সাব্বির চৌধুরীকে গ্রেফতার করে পাঁচলাইশ থানা-পুলিশ। এরপর তাকে চকবাজার থানা-পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

নগরীর চকবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আতিকুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে  জানান, বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে প্রেম ও সম্পর্ক তৈরির মাধ্যমে প্রতারণা ও নারী নির্যাতনের অভিযোগে সাব্বির চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। এ মামলায় তাকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

মতামত