টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

তারেককে খুঁজছে ইন্টারপোল

tariqueচট্টগ্রাম, ১৪  এপ্রিল (সিটিজি টাইমস):: বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বড় ছেলে ও বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে ‘ওয়ান্টেড’ তালিকায় রেখেছে ইন্টারন্যাশনাল ক্রিমিনাল পুলিশ অর্গানাইজেশন (ইন্টারপোল)। তারেককে গ্রেফতারে আন্তর্জাতিক পুলিশ সংস্থাটি রেড নোটিস জারি করেছে।

সংস্থাটির ওয়েবসাইটে তারেকের ছবিসহ ওয়ান্টেড তালিকায় তাকে রাখা হয়েছে। তাতে উল্লেখ করা হয়েছে, বিচারের জন্য বাংলাদেশের সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ তারেককে খুঁজছে।

হত্যা এবং আওয়ামী লীগের সমাবেশে গ্রেনেড হামলার জন্য তারেক অভিযুক্ত বলে ইন্টারপোলের নোটিসে উল্লেখ করা হয়েছে।

বিগত বিএনপি-জামায়াত জোট সরকার আমলে ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের সভানেত্রী ও তৎকালীন বিরোধীদলীয় নেতা শেখ হাসিনার জনসভায় গ্রেনেড হামলায় ২৪ জন প্রাণ হারান। আহত হন পাঁচ শতাধিক। চিরদিনের জন্য পঙ্গুত্বের অভিশাপ বয়ে বেড়াচ্ছেন অনেকে। শেখ হাসিনা অল্পের জন্য প্রাণে রক্ষা পেলেও একটি কানের শ্রবণশক্তি হারান তিনি। এ মামলার অন্যতম আসামি তারেক রহমান। ৫২ আসামির মধ্যে তারেক রহমানসহ ১৯ জনই পলাতক।

সেনাবাহিনী-সমর্থিত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে ২০০৮ সালে জামিনে থাকাকালীন তারেক রহমানকে চিকিৎসার জন্য যুক্তরাজ্যে যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হয়। সেসময় আর রাজনীতি করবেন না বলে মুচলেকা দিয়ে দেশ ত্যাগ করেন তারেক। তখন থেকে অদ্যাবধি সপরিবারে লন্ডনেই আছেন তিনি। সেখান থেকেই স্থানীয় বিএনপি আয়োজিত বিভিন্ন অনুষ্ঠানে সরকারবিরোধী ও বিতর্কিত মন্তব্য করছেন।

সম্প্রতি বাংলাদেশের ইতিহাসের নিজস্ব ব্যাখ্যা দাঁড় করিয়ে বক্তব্য দেওয়ায় রাষ্ট্রদ্রোহ ও মানহানির কয়েক ডজন মামলাতেও তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছে।

আইনের দৃষ্টিতে পলাতক থাকায় বাংলাদেশে সংবাদ মাধ্যম, সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম বা অন্য কোনও মাধ্যমে তারেকের কোনও বক্তব্য বা বিবৃতি প্রচার বা প্রকাশের ওপর আদালতের নিষেধাজ্ঞা রয়েছে।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত