টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

#MatterOfHeart – আপনি প্রস্তুত তো? 

unnamedবাংলাদেশে এখন প্রচুর মেয়ে হিজাব পড়ে এবং এটা অত্যন্ত পসিটিভ একটা ট্রেন্ড| শুধুমাত্র ফ্যাশনের জন্য না, ধর্মীয় দৃষ্টিকোণ থেকেও এই ট্রেন্ডের গুরুত্ব অনেক| তারপরও অনেকে এটাকে বাকা চোখে দেখে এবং কটুক্তি করে. তাদের কারো কাছে হিজাব পড়া শুধুই একটা ফ্যাশন, কারোর কাছে চুলের খুঁত ঢাকার বাহানা, আবার কারোর মতে এটা বাকিদের কাছে খুব দ্রুত ভদ্র সাজার উপকরণ। তাদের দৃষ্টিতে হিজাব ওর কাছে রঙ্গিন একটুকরা কাপড় ছাড়া কিছুই না।

এই চিন্তা থেকেই শুধুমাত্র কিছু মানুষের কাছে হিজাব পৌছে দেওয়ায় সীমাবদ্ধ না থেকে লোকাল ফ্যাশন ব্র্যান্ড স্টাইলাইন নেতিবাচক সব ধারণা থেকে বের হয়ে আসার অনুরোধ জানিয়ে ফেসবুকের মাধ্যমে সারা দেশব্যাপী আয়োজন করতে যাচ্ছে “Shout for Matter of Heart”. ৩রা এপ্রিল থেকে ৫ই এপ্রিল এই নীরব কিন্তু জোরালো প্রতিবাদে সম্মিলিত ভাবে অংশগ্রহণ করার আহবান থাকছে বিভিন্ন ঘরানার মানুষ এবং অবশ্যই হিজাব পরিহিতাদের কাছে। এই আওয়াজ তাদের বিশ্বাসকে আঘাত করার বিরুদ্ধে, নাতো কোনো ব্যক্তিবিশেষকে উদ্দেশ্য করে। অংশগ্রহণকারী প্রত্যেকে ফেসবুকে একটা ছবি আপলোড করতে পারেন যেটার ক্যাপশনে থাকবে #MatterOfHeart.  এখানেই শেষ নয়, এই ইভেন্টকে আরো বিস্তৃত করতে এবং এই উদ্যোগকে আরো জোরালো করতে ট্যাগ করে নমিনেট করতে পারেন আপনার ৩ জন বন্ধুকে। এটাই সময় এই ইভেন্টকে সমর্থন করে মানুষকে বুঝানো হিজাব কোনো হালকা ব্যাপার না। যেই মেয়েটি আজকে হিজাব পড়া শুরু করলো এটা তার কাছে অনেক কিছু। তার সিদ্ধান্তকে ছোট করার অধিকার কারোর নেই।

আপনি যদি হিজাব নাও পড়েন তাও এই ইভেন্টে যোগ দিতে পারেন যতক্ষন আপনার মনে হয় হিজাবের এই ভুল ব্যাখ্যা বন্ধ হওয়া উচিত।

ইভেন্ট লিঙ্ক-

https://www.facebook.com/events/1395864527399526/

স্বনামধন্য বেসরকারি এক বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী লুবাইনার মতে “আমরা সবাই একসাথে ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিবো – Please don’t misinterpret my Hijab. It’s a  #MatterOfHeart.”।

আপনি প্রস্তুত তো কিছু বলার আগে আরেকটু সচেতন হতে? কিছু ভাবার আগে আরেকটু ভেবে নিতে? নিজের অবস্থানকে আরেকটু মজবুত করুন ৩রা এপ্রিল থেকে ৫ই এপ্রিল – #MatterOfHeart  ট্যাগের মাধ্যমে নিজের মতামত জানিয়ে।

মতামত